করোনা আক্রান্ত ‘৮৬-র বিশ্বজয়ী কোচ বিলার্ডো, মেলেনি মারাদোনার প্রতিক্রিয়া

Mysepik Webdesk: ১৯৮৬ বিশ্বকাপে দলকে জয়ের পথে নিয়ে যাওয়া প্রাক্তন আর্জেন্টিনার ম্যানেজার কার্লোস বিলার্ডো করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। আর্জেন্টিনার মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরে বলা হয়েছে, ৮২ বছর বয়সি বিলার্দোর মস্তিষ্ক ঠিকমতো কাজ না করায় দীর্ঘদিন ভর্তি রয়েছেন নার্সিংহোমে। ঘটনাচক্রে ওই নার্সিংহোমের ১০ জনের করোনার রিপোর্ট ইতিবাচক এসেছে। তিনি মস্তিষ্কের ব্যাধিতে ভুগছেন। তিনি যে ক্লাবে খেলতেন এবং পরে কোচিংও করিয়েছিলেন, সেই এস্তোদিয়েন্তেস দে লা প্লাতা তাদের টুইটারের পৃষ্ঠায় তাঁর জন্য উৎসাহের বার্তা পাঠিয়েছে। তারা লিখেছে, “আমরা আপনার সঙ্গে এই ম্যাচে রয়েছি কার্লোস !” শুক্রবার তারা টুইট করেছে।

আরও পড়ুন: কোভিড আবহে স্বাস্থ্যবিধি মেনে শুরু তিরন্দাজ দীপিকা-অতনুর বিয়ের অনুষ্ঠান

ফুটবলে ৩-৫-২ ফর্মেশনকে জনপ্রিয় করেছিলেন বিলার্ডো। ১৯৮৬-তে এই ফর্মেশনে খেলেছিল বিশ্বচ্যাম্পিয়ন আর্জেন্টিনা। সেই চ্যাম্পিয়ন দলে ছিলেন ‘নয়নের মণি’ কিংবদন্তি দিয়েগো মারাদোনার বৈশিষ্ট্যযুক্ত ৩-৫-২ ফর্মেশনকে মূলধারার সাফল্যে আনার জন্য বিখ্যাত ছিলেন। ১৯৮৬ সালে আর্জেন্টিনা দলকে কোচ হিসেবে নেতৃত্ব দেওয়ার পাশাপাশি, ১৯৯০ সালে তিনি তাদের ফাইনালেও নিয়ে গিয়েছিলেন।

তিনি আর্জেন্টিনা ছাড়ার পরে স্প্যানিশ দল সেভিলার কোচ করেছিলেন। এরপরে তিনি গুয়াতেমেলা ও লিবিয়ার পরিচালক হিসাবে সংক্ষিপ্ত সময় ব্যয় করার আগে আর্জেন্টিনার জায়ান্ট ক্লাব বোকা জুনিয়র্সের কোচিংয়ের দায়িত্ব সামলেছিলেন। ২০০৩ থেকে ২০০৪ সালের মধ্যে এক বছরের জন্য তিনি এস্তোদিয়েন্তেসে ফিরে এসেছিলেন। বিলার্ডোকে ২০১৯ সালের জুলাইয়ে সালে হাকিম-অ্যাডামস সিনড্রোমের জন্য নার্সিংহোমে ভর্তি করা হয়েছিল। হাকিম-অ্যাডামস সিনড্রোমে কোনও ব্যক্তি তাঁর স্মৃতি হারাতে শুরু করেন, চলনশক্তিও কমে যায় তাঁর।

আরও পড়ুন: বছর পঁয়তাল্লিশ পরে, চুনীবাবুর তীর্থপতির ট্রফি-ঘরে…

যদিও একদা তাঁর কোচের করোনার আক্রান্তের খবর শুনে দিয়েগো মারাদোনার কোনও প্রতিক্রিয়া কী, তা এখনও পাওয়া যায়নি। প্রচারমাধ্যমের খবর হল, তাঁর শরীরে কোনও উপসর্গ নেই। ভালো আছেন ছিয়াশির বিশ্বজয়ী কোচ কার্লোস বিলার্ডো।

Facebook Twitter Print Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *