চার ঘণ্টা মুখে মৌমাছির ঝাঁক, গিনেস বুকে নাম তুললেন কেরলের যুবক

Mysepik Webdesk: বহু মানুষ রয়েছেন যারা মৌমাছির চাক (Bee) ভেঙে মধু সংগ্রহ করে জীবিকা নির্বাহ করেন। এই কাজে রয়েছে পদে পদে বিপদের হাতছানি। অসাবধানতাবসত মৌমাছি গায়ে হুল ফুটিয়ে দিলে প্রচন্ড যন্ত্রনা হয়। কিন্তু, সেই মৌমাছির ঝাঁক মাথায় ও মুখে নিয়ে একটানা চার ঘন্টার বেশি সময় বসে থাকলেন কেরলের (Kerala) এক যুবক। তুলে নিলেন গিনেস বুকে (Guinness Book) নিজের নাম।

আরও পড়ুন: করোনা আবহে অনলাইনে কলকাতার দুর্গাপূজা দেখার ব্যবস্থা করছে পুজো কমিটিগুলো

সূত্রের খবর, পতঙ্গপ্রেমী এই তরুণের পুরো মুখ আর মাথায় মৌমাছি ঝাঁক বসেছিল। সেই অবস্থায় ওই যুবক কাটিয়ে দিলেন প্রায় চার ঘণ্টারও বেশি সময়। ডেইলি মেলকে (Daily Mail) দেওয়া সাক্ষাৎকারে ওই যুবক জানিয়েছেন, “মৌমাছি আমার প্রিয় বন্ধু। আমার ইচ্ছা অন্যরাও ওদের বন্ধু বানাক। ছোট থেকেই বাবার সঙ্গে থেকে মৌমাছির সঙ্গে ঘর করার কৌশর রপ্ত করেছি। আমি সাত বছর বয়স থেকে ওদের মুখ ও মাথায় নিয়ে ঘুরে বেড়াই।” উল্লেখ্য, গত দু’বছর আগেও একইভাবে মৌমাছি সংরক্ষণ ও মধু চাষ নিয়ে সচেতনতা বাড়িয়ে বিশ্বরেকর্ড গড়েছিলেন এমএস।

Facebook Twitter Print Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *