চিনকে যোগ্য জবাব দিতে সেনাবাহিনীকে সবরকম আগ্নেয়াস্ত্র ব্যবহারের অনুমতি কেন্দ্রের

Indo-China Border

Mysepik Webdesk: লাদাখের গালওয়ান উপত্যকায় চিনা সেনার সঙ্গে সংঘর্ষে ২০ জওয়ান শহীদ হয়েছেন। এই পরিস্থিতিতে ভারত-চিন সীমান্তে প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখা বরাবর দীর্ঘদিন ধরে চলে আসা সংঘর্ষের বিধিনিষেধ মানার রাস্তা থেকে সরে এল ভারত। ১৯৯৬ সালের ভারত-চিন চুক্তি অনুযায়ী নিয়ন্ত্রণ রেখার ২ কিলোমিটারের মধ্যে দু’দেশের সেনাদের যেকোনও ধরণের আগ্নেয়াস্ত্র ব্যবহারের ক্ষেত্রে নিষেধাজ্ঞা জারি ছিল। এবার সেই চুক্তি থেকে সরে এল ভারত। এর ফলে প্রয়োজনে যেকোনও ধরণের আগ্নেয়াস্ত্র ব্যবহার করতে পারবে ভারতীয় সেনা।

আরও পড়ুন: খাস কলকাতায় চিন বিরোধী মিছিল, অংশগ্রহণে কলকাতাবাসী চিনারাই

সেনার এক শীর্ষ আধিকারিক জানিয়েছেন, সীমান্তে যেকোনও ধরণের পরিস্থিতির সামাল দিতে সেনারা নিজেদের ক্ষমতায় সিদ্ধান্ত নিতে পারবেন। এমনকি, প্রয়োজনে আগ্নেয়াস্ত্রও ব্যবহার করতে পারবেন। এর ফলে দীর্ঘ বছর ধরে চলে আসা চুক্তি শিথিল করে দেওয়া হল। এখন থেকে চিন সেনারা কোনও অপ্রীতিকর পরিস্থিতির সৃষ্টি করলে প্রয়োজনে গোলাগুলি চালানোর মাধ্যমে তার যোগ্য জবাব দেওয়া যাবে। উল্লেখ্য, গত সোমবার গালওয়ান উপত্যকায় প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখার কাছে ভারতীয় সেনার ওপর বর্বরোচিত আক্রমণ করে চিন সেনা। পেরেক ও কাঁটাতার লাগানো কাঠের তক্তা, রড, পাথর দিয়ে চিন সেনারা হামলা চালায় ভারতীয় সেনার ওপর।

Facebook Twitter Print Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *