বাঁকুড়ার শুশুনিয়া পাহাড় থেকে ৭০ বস্তা প্লাস্টিক ও মদের বোতল উদ্ধার

Mysepik Webdesk: বিশ্বে এই মুহূর্তে একটি বড়ো সমস্যা হল বর্জ্য প্লাস্টিক এবং ব্যবহৃত কাছের বোতলের সমস্যা। প্রতিনিয়ত আমাদের ব্যবহার করে ফেলে দেওয়া প্লাস্টিক বা প্লাস্টিকের বোতল মিশে যাচ্ছে পরিবেশের সঙ্গে যা দূষণ তো ছড়াচ্ছেই, সবচেয়ে বেশি ক্ষতি করছে জীব জগতের। বিশেষজ্ঞদের মতে, এই দূষণের হাত থেকে রেহাই পাওয়ার একমাত্র পথ হল ফেলে দেওয়া প্লাস্টিকের পুনর্নবীকরণ।

আরও পড়ুন: বিদ্যার দেবী সরস্বতী পূজিত হওয়ার আগে মৃৎশিল্পীরা সরকারের উদেশ্যে যা জানালেন

Image result for susunia plastic bottle

হিমালয়ের শিখরে প্রথম অভিযানের ১০০ বছর তথা বাঙালির এভারেস্ট অভিযানের ১০ বছর শেষ হয়েছে। এই বিশেষ দিনটিকে স্মরণীয় করে রাখতে বাংলার পর্বতারোহীদের একটি দল একটি অভিনব অভিযানে অংশ গ্রহণ করেছিলেন। পাহাড়কে ভালোবেসে তাঁরা পাহাড়ের ওপর জমে থাকা বর্জ্য পদার্থকে অপসারণের শপথ নিয়েছেন। তবে হিমালয় নয়, মহৎ এই কাজটি তাঁরা শুরু করলেন পশ্চিমবঙ্গের বাঁকুড়া জেলায় অবস্থিত পর্যটকদের একটি একটি আকর্ষণীয় জায়গা শুশুনিয়া পাহাড় থেকে। গত দু’দিন ধরে সাফাই অভিযান চালানোর পর তাঁরা যখন সেগুলিকে এক জায়গায় জড়ো করলেন, তখন দেখা গেল তাঁদের সঙ্গে রয়েছে অন্তত ৭০ বস্তা প্লাস্টিক ও প্রচুর সংখ্যক খালি মদের বোতল।

আরও পড়ুন: মতুয়া সম্প্রদায় থেকে মন্ত্রিত্বের দাবি

Image result for susunia hill

প্রসঙ্গত, ১৯২১ সালে প্রথম নর্থ কোল রুট দিয়ে এভারেস্টে অভিযান চালান জর্জ ম্যালোরি। তাঁর সেই এভারেস্ট অভিযান সফল না হলেও সেদিন পৃথিবীর ইতিহাসে এক নতুন অধ্যায় রচনা হয়েছিল। সেই হিসেবে এই বছর এভারেস্ট অভিযানের ১০০ বছর পূর্ণ হয়েছে। এছাড়াও প্রথম বাঙালি হিসেবে ২০১০ সালে পৃথিবীর সর্বোচ্চ শৃঙ্গে পা রাখেন বাঙালি অভিযাত্রী বসন্ত সিংহরায় ও দেবাশিস বিশ্বাস। তারও ১০ বছর পূর্ণ হয়েছে ২০২০ সালে। কিন্তু সে বছর করোনা অতিমারীর প্রকোপে তা আর উদযাপন করা হয়নি। তাই, এই বছর সেই কাজ করে ফেলেছে দুই পর্বতারোহী ক্লাব, হাওড়ার আরোহণ ওয়ান্ডার লাস্ট এবং বাঁকুড়ার এক্সপ্লোরেশন নেচার অ্যাকাডেমি।

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Facebook Twitter Email Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *