ফ্রিজে রাখা এক বছরের ন্যুডলস খেয়ে মৃত্যু ৯ জনের

Mysepik Webdesk: একবছর ধরে ফ্রিজের এক কোনে পড়েছিল ন্যুডলস। সেই ন্যুডলস দিয়ে সুয়ানতাঞ্জি (চিনের বিশেষ এক ধরণের সুপ) সুপ বানিয়ে খেয়ে শরীরে বিষক্রিয়া হয়ে একই পরিবার থেকে মৃত্যু হয়েছে ৯ জনের। চাঞ্চল্যকর ঘটনাটি ঘটেছে চিনের উত্তর-পূর্ব প্রদেশ হিলংজিয়াংয়ের জিক্সি শহরে। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, গাঁজানো কর্ন ফ্লাওয়ার থেকে তৈরি ওই ন্যুডলস দীর্ঘদিন ফ্রিজে থাকার ফলে তার মধ্যে বংগ্রেকিক নামে বিশেষ ধরনের এক অ্যাসিড তৈরি হয়েছিল। সেই সেই অ্যাসিডই পরিবারে মৃত্যুর আসল কারণ।

আরও পড়ুন: করাচির বিল্ডিংয়ে তীব্র বিস্ফোরণ, মৃত ৩, আহত আহত ১৬

জানা গিয়েছে, গত ১০ অক্টোবর ওই সুপ খাওয়ার পাঁচ দিনের মাথায় মোট ৭ জনের মৃত্যু হয়। এর দু’দিন পর আরও একজন মারা যান। গত সোমবার ফের আরও এক জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গিয়েছে। তিনিই ছিলেন ওই পরিবারের গৃহিনী, যিনিই ওই ন্যুডলস বানিয়ে পরিবেশন করেছিলেন। এই ঘটনা প্রকাশ্যে আসতেই চিনের স্বাস্থ্য কমিশন বিজ্ঞপ্তি জারি করে এই ধরণের খাওয়ার এড়িয়ে যাওয়ার পরবর্ষ দেয়।

আরও পড়ুন: ভারত-পাক সীমান্তে নিয়ন্ত্রণরেখার কাছে একাধিক মোবাইল টাওয়ার বসাচ্ছে পাকিস্তান, কিন্তু কেন?

ওই পরিবার থেকে তিনটি বাচ্চা সৌভাগ্যবশত বেঁচে যায়, কারণ তারা সেদিন ওই সুপ খেতে চাইছিল না। সেকারণেই তাদেরকে অন্য খাবার দেওয়া হয়েছিল। হিলংজিয়াং সেন্টার ডিজিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশন-এর খাদ্য সুরক্ষা অধিকর্তা গাও ফাই চিন সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, এই ধরণের গেঁজে যাওয়া খাবার খাওয়ার কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই মানুষের শরীরে বংগ্রেকিক বিষক্রিয়ার লক্ষণ প্রকাশ পায়। এর ফলে পেটব্যথা, দুর্বলতা থেকে অসুস্থ ব্যক্তি কোমায় পর্যন্ত চলে যেতে পারেন। কিছু কিছু ক্ষেত্রে আবার ২৪ ঘণ্টার মধ্যে এর বিষক্রিয়ায় মৃত্যু হতে পারে। এই অ্যাসিড লিভার, কিডনি, হার্ট ও ব্রেনের মতো গুরুত্বপূর্ণ অরগ্যানগুলিকে ক্ষতিগ্রস্ত করে।

Facebook Twitter Email Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *