কয়লাকাণ্ডে দিল্লি কোর্টকে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে উচ্চ আদালতের দ্বারস্থ হলেন অভিষেক-পত্নী রুজিরা

Mysepik Webdesk: কয়লা দুর্নীতি মামলায় আগামী ১২ অক্টোবর অভিষেক পত্নী রুজিরা নারুলাকে সশরীরে আদালতে হাজিরা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছিল দিল্লির পাতিয়ালা হাউস কোর্ট। আর সেই নির্দেশকে চ্যালেঞ্জ করে উচ্চ আদালতে গেলেন রুজিরা। আজ বুধবার এই সংক্রান্ত মামলা হয় আদালতে। সেখানে নিম্ন আদালতের নির্দেশকে চ্যালেঞ্জ করে মামলা করেন রুজিরা বন্দ্যোপাধ্যায়ের আইনজীবী।

আরও পড়ুন: ত্রিপুরা দখলের লক্ষ্যে নতুন টিম গঠন করল তৃণমূল

তিনবার সমন এড়িয়ে যাওয়ার কারণে পাতিয়ালা হাউস কোর্টের দ্বারস্থ হয় কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা। পাতিয়ালা হাউস কোর্ট সশরীরে হাজিরার নির্দেশ দেয় অভিষেক-পত্নী রুজিরা বন্দ্যোপাধ্যায়কে। আগামী ১২ অক্টোবর দুপুর ২টোর সময়ে হাজিরা দেওয়ার নির্দেশ দিল্লি পাতিয়ালা কোর্টের। পাতিয়ালা কোর্টেই তাঁকে হাজিরার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। সেদিন ইডির তরফেও রুজিরার বিরুদ্ধে কি প্রমাণ তাঁদের কাছে রয়েছে, সেই সংক্রান্ত যাবতীয় তথ্য জমা দেওয়া হবে। এমনটাই জানা গিয়েছে। নিম্ন আদালতের সেই নির্দেশকে চ্যালেঞ্জ জানিয়েই এ বার উচ্চ আদালতে হাজির হলেন রুজিরা। 

আরও পড়ুন: দীর্ঘ টানাপোড়েনের পর রাহুল গান্ধীকে লখিমপুর যাওয়ার অনুমতি দিল ইউপি প্রশাসন

রুজিরার পক্ষ থেকে দাবি করা হয়েছে, তিনি কখনই কোনও নিময়ভঙ্গ করেননি। কেন্দ্রের আর্থিক তছরুপ তদন্তকারী সংস্থা এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টোরেটের পক্ষ থেকে যে সমন পাঠানো হয়েছিল তার যথাযোগ্য জবাব তাঁরা যথা সময়ে দিয়েছেন। তিনি কোনও শর্ত ভঙ্গ করেননি। আইনজীবী মারফৎ দিল্লি হাইকোর্টে রুজিরা তাঁর আবেদনে জানান ইডি আইন মানছে না। যে কোনও মহিলাকে অন্য রাজ্য থেকে তলব করার আগে তদন্ত করতে হয়। কিন্তু এক্ষেত্রে তা করা হয়নি বলে অভিযোগ। শুধু তাই নয়, অভিষেক পত্নী তাঁর আবেদনে আরও জানিয়েছেন যে, এই মুহূর্তে করোনা পরিস্থিতি রয়েছে। তাঁর দুটি বাচ্চা আছে। ফলে এই মুহূর্তে তাঁদের ছেড়ে যাওয়া সম্ভব নয় বলেও আদালতের কাছে আর্জি জানান। 

Facebook Twitter Email Whatsapp

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *