২০০০ কোটি টাকার প্রতারণার অভিযোগ, রাতারাতি ঝাঁপ বন্ধ কেরালার চিট ফান্ড সংস্থার

Mysepik Webdesk: কেরালার জনপ্রিয় অর্থনৈতিক সংস্থা পপুলার ফাইন্যান্স রাতারাতি নিজেদেরকে দেউলিয়া ঘোষণা করে অফিস বন্ধ করে দিল। কেরালা রাজ্যের মধ্যে মোট ২৪৭টি শাখা একসঙ্গে বন্ধ করে দিয়েছে সংস্থা। এদিকে দেশ ছেড়ে পালতে গিয়ে পুলিশের জালে সংস্থার দুই কর্তা। আত্মসমর্পণ করেছেন সংস্থার এম ডি ও তাঁর স্ত্রী। প্রায় ২,০০০ কোটি টাকা প্রতারণার অভিযোগ রয়েছে ওই সংস্থার বিরুদ্ধে।

আরও পড়ুন: আনলক ৪: ৭ সেপ্টেম্বর থেকে দিল্লিতে চলবে মেট্রো রেল

কেরালার পাঠনমথিট্টা পুলিশ সুপার কে জি সাইমন জানিয়েছেন, সংস্থার ম্যানেজিং ডিরেক্টর রয় ড্যানিয়েলের দুই মেয়ে তথা সংস্থার সিইও রিনু মরিয়ম থমাস ও বোর্ড অফ ডিরেক্টর্স-এর সদস্য রিয়া অ্যান থমাস ভারত ছেড়ে অস্ট্রেলিয়া পালিয়ে যাওয়ার উদ্দেশ্যে ছিল, কিন্তু তাদের সেই উদ্দেশ্য বানচাল করে দেয় পুলিশ। দিল্লির আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে শুক্রবার তাদেরকে গ্রেফতার করা হয়। শনিবার পুলিশের কাছে আত্মসমর্পণ করেন সংস্থার ম্যানেজিং ডিরেক্টর রয় ড্যানিয়েল ও তাঁর স্ত্রী প্রভা থমাস। ধৃতদের হেফাজতে নিয়েছে রাজ্য পুলিশ।

আরও পড়ুন: ভারতে চিনা খেলনার বাজার দখল করার ইঙ্গিত দিলেন প্রধানমন্ত্রী

পুলিশ জানিয়েছে, ওই সংস্থার বিরুদ্ধে প্রায় একশোরও বেশি অভিযোগ জমা পড়েছে। ওই সংস্থায় বিনিয়োগকারীদের মধ্যে বেশিরভাগই অনাবাসী ভারতীয়। গত এক মাস ধরেই বিনিয়োগকারীরা তাদের নির্ধারিত সুদের টাকা পাচ্ছিলেন না। আর তার কয়েকদিনের মধ্যেই সংস্থাকে দেউলিয়া ঘোষণা করে অস্ট্রেলিয়া পালিয়ে যাওয়ার ধান্দায় ছিল থমাস পরিবার। গ্রাহকের অভিযোগ, গত এপ্রিল মাসের সুদ দিতে পারেনি পপুলার ফাইন্যান্স। জানানো হয়েছিল, করোনা পরিস্থিতির জন্য তাদের ব্যবসায় ক্ষতি হয়েছে। তবে কীভাবে ওই সংস্থার ভরাডুবি হয়েছে, তার তদন্তে নেমেছে পুলিশ।

Facebook Twitter Email Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *