হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের মধ্যেই তৃণমূলের জয়ের ইঙ্গিত

TMC Rally

Mysepik Webdesk: রাজ্যজুড়ে বিধানসভা নির্বাচনের প্রচার চলছে জোর কদমে। ইতিমধ্যেই নির্বাচন কমিশন ২০২১-এর বিধানসভা নির্বাচনের দিনক্ষণ ঘোষণা করেছেন। এবারের নির্বাচনে যে হাড্ডাহাড্ডি লড়াই হতে চলেছে তার আভাস আগে থেকেই পাওয়া যাচ্ছে। আসন্ন বিধানসভা নির্বাচন নিয়ে সর্বশেষ প্রকাশিত জনমত সমীক্ষায় ক্ষমতাসীন দল তৃণমূল কংগ্রেস ও বিজেপির মধ্যে হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের ইঙ্গিত পাওয়া গেছে। তবে শেষ পর্যন্ত তৃণমূলই শেষ হাসি হাসবে বলে আভাস দিচ্ছে এই সমীক্ষা। এবিপি আনন্দ ও সি-ভোটারের দ্বিতীয় দফার সমীক্ষার শেষে গতকাল শনিবার রাতে প্রকাশিত প্রতিবেদনে এমনই ইঙ্গিত দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন: বোলপুরে করোনার টিকা নেওয়ার ৩০ ঘণ্টা পর প্রয়াত ভোটকর্মী

গত শুক্রবার নির্বাচন কমিশন পশ্চিমবঙ্গসহ পাঁচ রাজ্যের বিধানসভা নির্বাচনের দিনক্ষণ ঘোষণা করেছেন। এবারে পশ্চিমবঙ্গের ২৯৪ আসনের ভোট হবে ৮ দফায়। ভোট শুরু হচ্ছে আগামী ২৭ মার্চ এবং শেষ হচ্ছে ২৯ এপ্রিল। আর ফলাফল ঘোষণা হবে আগামী ২ মে।

এবিপি আনন্দ ও সি-ভোটারের জনমত সমীক্ষা অনুযায়ী, ২৯৪ আসনের মধ্যে তৃণমূল জিততে পারে ১৪৮ থেকে ১৬৪টি আসনে। ভোট পেতে পারে ৪৩ শতাংশ। সেই সঙ্গে এই সমীক্ষায় বিজেপির উত্থানের আভাস স্পষ্ট দেখা যাচ্ছে। বিজেপি পেতে পারে ৯২ থেকে ১০৮টি আসন। মোট ভোটার ৩৮ শতাংশ। অন্যদিকে বাম-কংগ্রেস জোট পেতে পারে ৩১ থেকে ৩৯টি আসন। ভোট পেতে পারে ১৩ শতাংশ। আর অন্যান্যরা ১ থেকে ৫টি আসন পেতে পারে।

আরও পড়ুন: ব্রিগেডের পথে সকাল থেকেই ত্রিবর্ণ জনস্রোত

অন্যদিকে একটি সমীক্ষায় দেখা গেছে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে পছন্দ করেছেন ৫৫ শতাংশ ভোটার। বিজেপি নেতা দিলীপ ঘোষকে ২৫ শতাংশ, বিজেপি নেতা মুকুল রায়কে ৯ শতাংশ, সিপিএম নেতা সুজন চক্রবর্তীকে ৩ শতাংশ ও কংগ্রেস নেতা অধীর চৌধুরীকে পছন্দ করেছেন ২ শতাংশ ভোটার।

Facebook Twitter Email Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *