কোভিশিল্ড ও কোভ্যাক্সিনকে অনুমোদন ড্রাগ কন্ট্রোলার-জেনারেল অব ইন্ডিয়ার

Mysepik Webdesk: করোনার টিকা নিয়ে অবশেষে দেশবাসীর জন্য দারুন স্বস্তির খবর। ভারতের ড্রাগ কন্ট্রোলার-জেনারেল অব ইন্ডিয়া বা DCGI কোভিশিল্ড ও কোভ্যাক্সিনকে সরকারিভাবে অনুমোদন দিয়েছে। রবিবার একটি সাংবাদিক সম্মেলনে বেশ কিছু শর্ত সাপেক্ষে দ্রুত টিকাকরণের জন্য এই অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। ডিসিজিআই-এর পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, কোভিশিল্ডের সুরক্ষা-নিশ্চয়তা ৭০ শতাংশেরও বেশি। এই ভ্যাকসিন দু’টিকে ২ থেকে ৮ ডিগ্রি সেন্টিগ্রেড তাপমাত্রায় রাখা যাবে। সম্পূর্ণরূপে দেশ প্রযুক্তিতে তৈরি এই দু’টি ভ্যাকসিন খুব শীঘ্রই বাজারে আসছে।

আরও পড়ুন: কোভিড ভ্যাকসিন নিতে চান? জেনে নিন CO-WIN অ্যাপের মাধ্যমে কীভাবে নাম রেজিস্টার করবেন

রবিবার সকালে ড্রাগ কন্ট্রোলার জেনারেল অব ইন্ডিয়ার পক্ষ থেকে ভি জি সম্মানী সাংবাদিক বৈঠকে জানান, দেশ সংস্থা সিরাম ইন্সটিউটের তৈরি কোভিশিল্ড এবং ভারত বায়োটেকের তৈরি কোভ্যাকসিনের ট্রায়াল রান করানো হয়েছে। সেই ট্রায়াল রিপোর্ট সন্তোষজনক এসেছে। সেই ট্রায়ালের রিপোর্ট পেশ করার পরেই তা সরকারি ছাড়পত্র পেল। তবে এখনই সকলকে এই টিকা দেওয়া হচ্ছে না। জরুরি ভিত্তিতে টিকার প্রয়োগ করা হবে।

আরও পড়ুন: ফের গ্রেফতার মুম্বই সন্ত্রাসী হামলার মূল হোতা লাখভি

ভ্যাকসিন দুটিকে অনুমোদন দেওয়ার পর এ দিন সকালে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি একটি টুইট করে লেখেন, “একটি উৎসাহী লড়াইকে শক্তিশালী করার একটি সিদ্ধান্তমূলক পদক্ষেপ। ভ্যাকসিনগুলিতে ডিসিজিআই অনুমোদন দিয়েছে, যা একটি স্বাস্থ্যকর এবং কোভিডমুক্ত জাতির রাস্তাকে আরও ত্বরান্বিত করবে। অভিনন্দন ভারত।” প্রসঙ্গত, কোভিশিল্ড তৈরি করেছে অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকা, পুণের সিরাম ইন্সটিটিউটে যা উৎপাদন হচ্ছে। অন্যদিকে, ভারত বায়োটেক তৈরি করেছে কোভ্যাকসিন।

Facebook Twitter Email Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *