করোনা বিধিকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে ‘কেস’ খেলেন সাম্বার দেশের প্রেসিডেন্ট

Mysepik Webdesk: স্বাস্থ্যবিধি না মেনে প্রভাবশালী এই মানুষটি বিশাল জনসভা করেছিলেন। এ মানুষটি আর কেউ নন, ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট জাইরে বলসোনারো। মাঝেমধ্যে করোনাকে তোয়াক্কা না করে বিরুদ্ধ মন্তব্য করায় বেশ মাহির ছিলেন তিনি। আর এবার তো কোনোরকম স্বাস্থ্যবিধিকে ডোন্ট কেয়ার ভাব দেখিয়ে মারানহাও প্রদেশে করে বসলেন বিরাট এক জনসভা। সেই জনসভায় পিলপিল করে মানুষ এলেন, শুধু এলেনই না, শারীরিক দূরত্ববিধিও সেখানে মানা হল না। খোদ প্রেসিডেন্ট মাস্ক পরলেন না কোনো এক অদৃষ্ট কারণে। আর এর জন্য প্রদেশটির প্রশাসন করা আচরণ দেখাল ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট জাইরের ওপর। তারা শাস্তিস্বরূপ প্রেসিডেন্টকে জরিমানা করতে চলেছে বলে খবর।

আরও পড়ুন: সংসদ ভেঙে ভোটের দিন ঘোষণা নেপালের রাষ্ট্রপতির, বিরোধীরা বললেন ‘মধ্যরাতের ডাকাতি’

কোভিড আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুর সংখ্যার পরিসংখ্যানের দিক থেকে ব্রাজিল রয়েছে দ্বিতীয় স্থানে। খাস এই দেশটির প্রেসিডেন্টই করোনাবিধি মানা থেকে শত যোজন দূরে অবস্থান করেন। কখনো কখনো করোনা সম্পর্কিত বিতর্কিত মন্তব্য করে বসেন। আবার কখনো টিকা নেওয়ার প্রতিও অনীহা প্রকাশ করেন। এই করতে গিয়ে নিজেও আক্রান্ত হয়েছিলেন করোনায়। তবে সুস্থ হতেই আবার যে কে সেই। মহামারি যে তাঁকে শিক্ষা দিতে পারেনি, মারানহাও প্রদেশের ঘটনা তার চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিল।

আরও পড়ুন: ইসরাইল-প্যালেস্তাইন সংঘাত, একপেশে মিডিয়া

মারানহাও প্রদেশের প্রশাসন ইতিমধ্যেই জানিয়েছে যে, জাইরে গত শুক্রবার একটি সভানুষ্ঠানে যোগ দিতে এখানে এসেছিলেন। বহু মানুষ জমায়েত হয়েছিল সেই সভায়। মস্ট ছিলনা করোর মুখেই। শারীরিক দূরত্বও বজায় রাখা হয়নি। খোদ প্রেসিডেন্ট স্বয়ং মাস্ক পারেননি। সকলের চোখে আইন সমান। প্রেসিডেন্টের বিরুদ্ধে নিয়মভঙ্গ করার অভিযোগে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। জরিমানা করা হবে তাঁকে। জানা গিয়েছে যে, এর মধ্যেই প্রেসিডেন্টের অফিসে পাঠানো হয়েছে চিঠি। জাইরের অফিস অবশ্য দিন ১৫ সময় নিয়েছে জবাব দেওয়ার জন্য।

Facebook Twitter Email Whatsapp

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *