ব্রেকিং নিউজ: রাজ্যের সবকটি পুজো প্যান্ডেলেই থাকতে হবে ‘নো এন্ট্রি বাফার জোন’, জনস্বার্থ মামলায় রায় হাইকোর্টের

Kolkata High Court

Mysepik Webdesk: ছোট হোক, কিংবা বড়, রাজ্যের সমস্ত পুজো প্যান্ডেলই থাকতে হবে ‘নো এন্ট্রি বাফার জোন’, প্যান্ডেল এরিয়ায় ব্যারিকেট দিয়ে করা থাকবে ওই বিশেষ জোন। সকলের যাতে নজর পরে সেরকম ভাবেই বড় বড় করে লিখে রাখতে হবে ‘নো এন্ট্রি জোন’। পাশাপাশি মন্ডপে একসঙ্গে ১৫ থেকে ২৫ জনের বেশি দর্শনার্থীদের প্রবেশ করতে দেওয়া হবে না। ছোট মণ্ডপ হলে তার ৫ মিটারের মধ্যে এবং বড় মণ্ডপ হলে তার ১০ মিটারের মধ্যে কোনও দর্শনার্থী প্রবেশ করতে পারবে না। এছাড়াও আগে থেকে পুজো উদ্যোক্তাদের নামের তালিকা জমা দিতে হবে। রাজ্য সরকারের কাছ থেকে পাওয়া অনুদানের হলফনামা দিতে হবে। এদিন পুজোর ভিড় নিয়ে জনস্বার্থ মামলায় এমনটাই রায় দিল হাইকোর্ট। পাশাপাশি এদিন বিচারপতির বেঞ্চ জানিয়েছে, রাস্তায় ভিড় নিয়ন্ত্রণে অ্যাওয়ারনেশ ক্যাম্পেইন করতে হবে প্রশাসনকে।

আরও পড়ুন: পশ্চিমবঙ্গের কয়েকটি এলাকায় করোনাভাইরাসের গোষ্ঠী সংক্রমণ! স্বীকার করে নিল কেন্দ্র

করোনাকালে এবছর বারোয়ারি দুর্গাপুজো স্থগিত রাখার জন্য কলকাতা হাইকোর্টে একটি জনস্বার্থ মামলা দায়ের করা হয়েছিল। মামলাকারীদের আবেদন, ওনাম উৎসবের পর কেরালায় যে হারে করোনা সংক্রম বেড়ে গিয়েছে, এরাজ্যে দুর্গাপুজো হলে পশ্চিমবঙ্গের অবস্থাও কেরালার মতো হবে। পাশাপাশি ওই মামলায় আরও জানানো হয়, করোনা সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ার ভয়েই এবছর মহারাষ্ট্রে গণেশ পুজো এবং মহরমের অনুমতি দেওয়া হয়নি।

আরও পড়ুন: হার মানলেন করোনার কাছে, প্রয়াত কলকাতা পুলিশের অ্যাসিস্ট্যান্ট সাব ইনস্পেক্টর সিদ্ধান্ত শেখর দে

কলকাতা হাইকোর্টের আইনজীবী সব্যসাচী চ্যাটার্জী জানিয়েছিলেন, জনস্বার্থ মামলায় উল্লেখ করা হয়েছে, কেরালায় ওনাম উৎসবের পর যেভাবে করোনা সংক্রমণ বেড়ে গিয়েছিল, এরাজ্যে দুর্গাপুজো হলে নভেল করোনা ভাইরাস সংক্রমণের হার লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়বে। সেই কারণেই কেরালার উদাহরণকে সামনে রেখে এরাজ্যেও নিষিদ্ধ হোক বারোয়ারি দুর্গাৎসব। প্রসঙ্গত, কয়েকদিন আগেই রাজ্যের চিকিৎসক সংগঠনের পক্ষ থেকে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে চিঠি লিখে সতর্ক করা হয়েছে, পুজো উপলক্ষে রাস্তায় মানুষের ঢল নামলে করোনার প্রকোপ বেড়ে যাবে রাজ্যে।

Similar Posts:

Facebook Twitter Email Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *