BREAKING BEWS: মাদক কাণ্ডে জামিন পেলেন আরিয়ান খান

Mysepik Webdesk: অবশেষে মাদক কাণ্ডে গ্রেফতার হওয়ার পর জামিন পেলেন শাহরুখ-পুত্র আরিয়ান খান। ২৫দিন জেলবন্দি থাকার পর বৃহস্পতিবার বোম্বে হাইকোর্ট আরিয়ানের জামিন মঞ্জুর করল। আরিয়ানের পাশাপাশি জামিন পেলেন তাঁর বন্ধু আরবাজ মার্চেন্ট এবং মুনমুন ধামেচা। তবে জামিন মঞ্জুর হলেও আজই তাঁরা জেল থেকে ছাড়া পাবেন না। কারণ, এদিন জামিন মঞ্জুর হলেও বিস্তারিত রায় দেয়নি আদালত। ফলে, আজ রাত্রিটাও তাঁদের জেলেই কাটাতে হচ্ছে। আগামিকাল জামিন মঞ্জুরের বিস্তারিত কারণ জানানোর পরেই আর্থার রোড জেল থেকে বাড়ি ফিরতে পারবেন তাঁরা।

আরও পড়ুন: মাদক কাণ্ডে NCB -র অন্যতম সাক্ষীকে গ্রেফতার করল পুলিশ

এদিন সওয়াল-জবাব চলাকালীন আদালতে NCB-র আইনজীবী অনিল সিং বলেন, “ঘটনার অন্যতম মূল অভিযুক্ত আরিয়ান খান এই প্রথম মাদক কাণ্ডে জড়িয়েছেন এমন নয়। দীর্ঘদিন ধরেই তিনি মাদক পাচারকারীদের সঙ্গে যোগাযোগ রাখতেন।” তিনি আরও বলেন, “ডিফেন্স সবসময় টেস্টিং নিয়ে প্রশ্ন তুলছে। আমাদের কেস মাদক ব্যবহার করা নিয়ে নয়, বরং নিজেদের হেফাজতে মাদক রাখা নিয়ে। অভিযুক্ত জেনেশুনেই নিজের হেফাজতে মাদক রেখেছিলেন। আরিয়ান খান জানতেন আরবাজের কাছে মাদক আছে। দু’জনে সেটা নেবেন ভেবেছিলেন।” তাঁর দাবি, আরিয়ানের হোয়াটসঅ্যাপ দেখে স্পষ্ট যে তিনি মাদক ব্যবহারের জন্য নয়, বরং বিক্রির চেষ্টা করছিলেন।

আরও পড়ুন: আরিয়ানের সঙ্গে দেখা করতে আজই আর্থার রোড জেলে আসছেন শাহরুখ-পত্নী গৌরী খান

এদিকে বৃহস্পতিবার সকালেই মাদক কাণ্ডের NCB -র অন্যতম সাক্ষী কিরণ গোসাভিকে গ্রেফতার করল পুনের পুলিশ। পুলিশ সূত্রে খবর, ২০১৮ সালে দায়ের করা একটি প্রতারণা মামলায় তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এতদিন পর্যন্ত বেপাত্তা ছিল কিরণ, কিন্তু আরিয়ান খানের ঘটনার সময় তাকে ফের প্রকাশ্যে আসতে দেখা গিয়েছে। তখন থেকেই লুক আউট নোটিশ জারি করে পুলিশ। পুনের পুলিশ কমিশনার অমিতাভ গুপ্ত তার গ্রেফতারির খবর স্বীকার করছেন। পুনে সিটি পুলিশ কিরণ গোসাভির বিরুদ্ধে আইপিসির ধারা ৪৬৫ এবং ৪৬৮ ধারা যুক্ত করেছে। তার বিরুদ্ধে ফরাসখানা থানায় একাধিক নথি জাল করার এবং সেই নথি একাধিক জায়গায় ব্যবহার করার অভিযোগে তার বিরুদ্ধে মামলা করেছে। কিরণ গোসাভিকে পুনের আদালত 8 দিনের জন্য পুলিশ হেফাজতে পাঠিয়েছে।

আরও পড়ুন: আরিয়ানকে গাঁজা জোগাড় করে দেবেন বলে জানিয়েছিলেন অনন্যা!

Facebook Twitter Email Whatsapp

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *