ঘূর্ণিঝড় ‘নিবার’ বুধবার আছড়ে পড়তে পারে তামিলনাড়ু-পুদুচেরিতে, ছুটি ঘোষণা, পাশে থাকার আশ্বাস প্রধানমন্ত্রীর

Mysepik Webdesk: বঙ্গোপসাগরের উপরের যে নিম্নচাপ তৈরি হয়েছিল, তা এখন ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হয়েছে। আবহাওয়া দফতর অনুমান করেছে যে, ২৫ নভেম্বর নভেম্বর এই ঘূর্ণিঝড় তামিলনাড়ুর মামল্লাপুরম এবং পুদুচেরির করাইকাল উপকূল অতিক্রম করবে। ঝড়টির নামকরণ করা হয়েছে ‘নিবার’। আশাঙ্কা যে, এই ঝড়ের ফলে তামিলনাড়ু ও পুদুচেরিতে ভয়াবহ বিপর্যয় দেখা দিতে পারে।

আরও পড়ুন: ভরতপুর-ধোলপুর জাট সংরক্ষণ: করোনার কারণে জাট মহাপঞ্চায়েতকে ৫ দিনের জন্য বাড়ানোর সিদ্ধান্ত

ভারতীয় আবহাওয়া দফতরের ডিরেক্টর জানিয়েছেন, ২৫ নভেম্বর উপকূলীয় এবং উত্তর অভ্যন্তরীণ তামিলনাড়ুতে ভারী বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে। উত্তর তামিলনাড়ুর জেলাগুলি সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে। নিম্নাঞ্চলীয় অঞ্চলে বসবাসকারী মানুষদের ক্যাম্পে যাওয়ার অনুরোধ করা হয়েছে। তামিলনাড়ুর কুডলোরের এক দুর্যোগ পর্যবেক্ষণ কর্মকর্তা নিচু অঞ্চলে বসবাসকারী মানুষদের সরকার নির্মিত শিবিরে যাওয়ার কথা বলেছেন। একইসঙ্গে, ব্লক ও পঞ্চায়েতে জোনাল টিম মোতায়েন করা হয়েছে, যারা ঝড়ের পরে রাস্তা পরিষ্কার করবে এবং বৈদ্যুতিক খুঁটি ঠিক করবে।

আরও পড়ুন: ভোপালে বাড়ছে করোনা: ফের তৈরি হচ্ছে কনটেনমেন্ট জোন, বন্ধ অবাধ যাতায়াত, আজ রাত ৮টার পর বন্ধ বাজার

রাজ্য সরকার ঘূর্ণিঝড়ের পরিপ্রেক্ষিতে বুধবার তামিলনাড়ুতে ছুটি ঘোষণা করেছে। তবে প্রয়োজনীয় পরিষেবাগুলির উপর কোনও বিধিনিষেধ থাকবে না। জানা গিয়েছে, আনুমানিক ১২০ থেকে ১৪৫ কিমি/ঘণ্টা বেগে বয়ে যেতে পারে ঝড়। আবহাওয়া দফতর জানিয়েছে যে, এই সময়ে বাতাসের গতিবেগ ঘণ্টায় ১২০-১৩০ কিমি থাকবে, যা প্রতি ঘণ্টায় ১৪৫ কিমি পর্যন্তও পৌঁছতে পারে। ঝড়ের জেরে তামিলনাড়ু ও পুদুচেরি উপকূলীয় অঞ্চলে উচ্চ সতর্কতা জারি হয়েছে। জেলেদের সমুদ্রে না যাওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। এদিকে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি তামিলনাড়ু প্রশাসনের পাশে থাকার কথা ইতিমধ্যেই জানিয়েছেন।

Facebook Twitter Email Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *