বার বার সতর্ক করা সত্ত্বেও ব্যবস্থা নেয়নি কেন্দ্র, পদ ছাড়লেন ভাইরোলজিস্ট শাহিদ জামিল

Mysepik Webdesk: দেশজুড়ে আছড়ে পড়তে চলেছে করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় ঢেউ। বার বার কেন্দ্রীয় সরকারকে এই বিষয়ে সতর্ক করা হলেও কোনও ব্যবস্থা নেয়নি কেন্দ্রীয় সরকার। ক্ষুব্ধ হয়ে অবশেষে পদত্যাগ করলেন বিশিষ্ট ভাইরোলজিস্ট শাহিদ জামিল (Shahid Jameel)। করোনাভাইরাসের ভ্যারিয়েন্ট পরীক্ষা নিরীক্ষা করার জন্য কেন্দ্রীয় সরকারের পক্ষ থেকে INSACOG নামে একটি কমিটি গঠন করা হয়েছিল। সেই কমিটির শীর্ষ স্থানে ছিলেন শাহিদ।

আরও পড়ুন: তিন লক্ষের গন্ডি থেকে নামল দেশে দৈনিক করোনা আক্রান্তের সংখ্যা

সংবাদমাধ্যমকে একটি সাক্ষাৎকারে তিনি জানান, “দিনের পর দিন কেন্দ্রীয় সরকারকে করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় ঢেউয়ের বিষয়ে সতর্ক করা হয়েছিল। বলা হয়েছিল মার্চের গোড়াতেই দেশজুড়ে করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় ঢেউ আছড়ে পড়বে। তবে শুধু বলাই হচ্ছিল, কোনও কিছুতেই কর্ণপাত করেনি কেন্দ্র।” তাঁর কথায়, “ভারতে করোনাভাইরাসের নয়া ডবল মিউট্যান্ট ভ্যারিয়েন্ট (Double Mutant Variant B.1.617) পাওয়ার জন্যই ব্যাপক হরে সংক্রমণ ঘটছে। এই সম্পর্কে তথ্য দেওয়া হচ্ছিল কেন্দ্রকে। তা সত্ত্বেও কেন্দ্র আগের থেকে কোনও ব্যবস্থা নেয়নি।

আরও পড়ুন: দিল্লিতে লকডাউনের মেয়াদ বাড়ল আরও এক সপ্তাহ

তিনি আরও বলেন, “ভারতে E484K নামে আরও একটি মিউট্যান্ট আছে। সেটারই হালকা ভ্যারিয়েশন হল ভারতীয় ভ্যারিয়েন্টের অংশ। যে ডবল ভ্যারিয়েন্ট নিয়ে ভারতে আলোচনা হয়েছে, তাতে ১৫টি পৃথক মিউটেশন আছে। এর মধ্যে ২টি জটিল মিউটেশন পাওয়া গিয়েছে। তার একটি পাওয়া গিয়েছিল ক্যালিফোর্নিয়ায়। এর থেকেই দক্ষিণ ক্যালিফোর্নিয়ায় ছড়িয়ে পড়ে ভাইরাস। আর যদি এমনটা সেখানে হতে পারে, তাহলে ভারতে কেন হতে পারে না?”

Facebook Twitter Email Whatsapp

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *