Latest News

Popular Posts

‘উন্নয়ন ঘরে ঘরে, ঘরের মেয়ে ভবানীপুরে’- ভবানীপুরে শুরু তৃণমূলের ভোট প্রচার

‘উন্নয়ন ঘরে ঘরে, ঘরের মেয়ে ভবানীপুরে’- ভবানীপুরে শুরু তৃণমূলের ভোট প্রচার

Mysepik Webdesk: রাজ্যে ফের নির্বাচনের দামামা বাজল। গত ৪ সেপ্টেম্বর পশ্চিমবঙ্গের উপনির্বাচনের দিন ঘোষণা করেছে নির্বাচন কমিশন। নির্বাচন কমিশনের বিবৃতি অনুযায়ী, পুজোর আগেই রাজ্যে উপনির্বাচনের যাবতীয় প্রক্রিয়া শেষ করা হবে। ভবানীপুরের পাশাপাশি ভোট হবে সামশেরগঞ্জ জঙ্গিপুরেও। আগামী ৩০ সেপ্টেম্বর এই তিনটি কেন্দ্রে একই দিনে ভোট প্রক্রিয়া সম্পন্ন করা হবে। ভোটের ফলাফল ঘোষণা করা হবে ৩ অক্টোবর।

আরও পড়ুন: বর্ষীয়ান সাংবাদিক এবং রাজ্যসভার প্রাক্তন সাংসদ চন্দন মিত্রের জীবনাবসান

সেই ভোটের দিনক্ষণ ঘোষণা হতেই জোরকদমে প্রচার শুরু করে দিল রাজ্যের শাসক দল। বিধানসভা নির্বাচনের প্রচারের সময় তৃণমূল কংগ্রেসের স্লোগান ছিল ‘বাংলা নিজের মেয়েকেই চায়’। এই স্লোগানের ওপর ভিত্তি করে বিপুল আসনে জয়ী হয়ে বাংলায় তৃতীয়বারের জন্য ক্ষমতায় এসেছে তৃণমূল কংগ্রেস। এবার সেই বিধানসভা ভোটারই উপনির্বাচন হতে চলেছে ভবানীপুর কেন্দ্রে। বিধানসভার ভোটে জয়ী প্রার্থী তথা কৃষিমন্ত্রী শোভন দেব চট্টোপাধ্যায় পদত্যাগ করার জন্য উপনির্বাচনে ভবানীপুর কেন্দ্রে এবার প্রার্থী হচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

আরও পড়ুন: শিক্ষক সংবর্ধনা লাভপুরে

সোমবার থেকেই ভবানীপুর কেন্দ্রে প্রচারে নেমে পড়েছে তৃণমূল কংগ্রেসের শাখা সংগঠন জয় হিন্দ বাহিনী। রাজ্যের উন্নয়নকে হাতিয়ার করে উপনির্বাচনে তৃণমূল কর্মীদের এবারের স্লোগান ‘উন্নয়ন ঘরে ঘরে, ঘরের মেয়ে ভবানীপুরে’। শেষ দু’বারেও রাজ্যের বিধানসভা ভোটে ভবানীপুর কেন্দ্রে তৃণমূল প্রার্থী হয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কিন্তু একুশের ভোটে সেই নিয়মের ব্যতিক্রম ঘটিয়ে তিনি স্বেচ্ছায় নন্দীগ্রাম কেন্দ্র থেকে দাঁড়িয়েছিলেন। কিন্তু উপনির্বাচনের জন্য বিজেপি প্রার্থী রুদ্রনীল ঘোষকে প্রায় ৩০ হাজার ভোটে হারানো সত্ত্বেও রাজ্যের মন্ত্রী শোভনদেব চট্টোপাধ্যায় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের জন্য ভবানীপুর কেন্দ্রটি ছেড়ে দেন।

টাটকা খবর বাংলায় পড়তে লগইন করুন www.mysepik.com-এ। পড়ুন, আপডেটেড খবর। প্রতিমুহূর্তে খবরের আপডেট পেতে আমাদের ফেসবুক পেজটি লাইক করুন। https://www.facebook.com/mysepik

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *