মহামারির সময় প্রতিদিন প্রায় ৩০০ দুস্থের মুখে মাত্র ২ টাকায় অন্ন তুলে দেবে বিরাটি বাঙাল ব্রিগেড

Mysepik Webdesk: একটু সহানুভূতি কি মানুষ পেতে পারে না? নাহ, কেবল সহানুভূতির প্রশ্ন নয় বরং মানুষের জন্য মানুষের পাশে দাঁড়ানোর অঙ্গীকার নিয়ে ইস্টবেঙ্গল ফ্যান ক্লাব বিরাটি বাঙাল ব্রিগেডের পক্ষ থেকে এক কমিউনিটি কিচেনের আয়োজন হল। স্বর্গীয় দ্বিজেন্দ্র কুমার (টুনু)-এর স্মৃতির উদ্দেশ্যে এই কমিউনিটি কিচেনের শুভারম্ভ আজ, ২৪ মে, সোমবার।

আরও পড়ুন: অলিম্পিকে ভারত থেকে আরও বেশি ব্যাডমিন্টন খেলোয়াড় থাকলে পদকের আশা বেড়ে যেত, একান্ত সাক্ষাৎকারে বললেন প্রণীথ

করোনা অতিমারির প্রাক্কালে প্রতিদিন অন্তত ২০০ জন অসহায় মানুষকে এই সংগঠনের পক্ষ থেকে রান্না করা খাবার তুলে দেওয়া হবে, তাও মাত্র ২ টাকায়। এদিন সর্দারপাড়া বিরাটির অনুষ্ঠান ভবনে অনুষ্ঠিত হবে এই মহৎ কার্যের।

ইস্টবেঙ্গল ফ্যান ক্লাব বিরাটি বাঙাল ব্রিগেডের প্রেসিডেন্ট মৃগাঙ্ক ভট্টাচার্য mysepik.com-কে বলেন, “মানুষের সেবার জন্যই এই আয়োজন। আজ দুস্থদের মুখে অন্ন তুলে দিতে পারব ভেবে আমরা সবাই খুবই আনন্দিত। আজ সয়াবিনের তরকারি ও ভাত দেওয়া হবে তাঁদের। বিকেল সাড়ে ৫টা নাগাদ হবে উদ্বোধন। উদ্বোধন অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকবেন ডাঃ হৃষিকেশ মজুমদার। থাকবেন প্রাক্তন তৃণমূল কাউন্সিলর বীণা ভৌমিক। সন্ধে ৭টা থেকে ৯টা পর্যন্ত চলবে এই দুস্থদের মধ্যে খাদ্য বিতরণ অনুষ্ঠান।”

আরও পড়ুন: যশের হাত থেকে বাঁচতে জেলার স্কুলগুলিকে গড়ে তোলা হল অস্থায়ী আশ্রয়স্থল হিসেবে

এদিন এই অনুষ্ঠানকে ঘিরে সকাল থেকেই চলছে যুদ্ধকালীন তৎপরতায় কাজ। ইস্টবেঙ্গলের এই ফ্যান ক্লাবের প্রেসিডেন্ট ছাড়াও সেক্রেটারি সৌরভ মজুমদার-সহ বিরাটি বাঙাল ব্রিগেডের একনিষ্ঠ কর্মী প্রতীক মজুমদার, সুরজিৎ সেনগুপ্ত, অয়ন দাস-সহ অনেকেই খুবই পরিশ্রম করছেন। এই অনুষ্ঠান প্রচারের জন্য ইস্টবেঙ্গল ফ্যান ক্লাব বিরাটি বাঙাল ব্রিগেড বিভিন্ন জায়গায়— বিরাটি খলিসাকোটা পল্লী, বিরাটি শক্তিগড় দুর্গামণ্ডপ, বিরাটি রেল স্টেশন সহ বিভিন্ন জায়গায় ফ্লেক্স টাঙিয়ে প্রচার করেছে।

দুবাই নিবাসী বিরাটি বাঙাল ব্রিগেডের একনিষ্ঠ সদস্য অমরেশ মজুমদার এবং সোমা মজুমদার বিভিন্ন দিক দিয়ে সহায়তা করেছেন বলে জানা গিয়েছে। জানা গিয়েছে যে, আরও অনেক মানুষ অর্থ সহায়তায় এগিয়ে এসেছেন। প্রত্যেকের নামই ফ্যান ক্লাবটির ফেসবুক পেজে দেওয়া হবে। তবে আজ প্রথম দিন খাদ্য গ্রহণকারী মানুষের সংখ্যা বেড়ে ২৫০-৩০০ থাকবে বলে জানা গিয়েছে। ফ্যান ক্লাবের কর্মীদের ধারণা, প্রতিদিনই এই সংখ্যাটা উত্তরোত্তর বাড়বে। একদিকে করোনা, একদিকে ব্ল্যাক ফাঙ্গাস, তার উপর চোখ রাঙাচ্ছে ঘূর্ণিঝড় যশ। এর মাঝেও বিরাটি বাঙাল ব্রিগেডের এই উদ্যোগের প্রশংসা পাচ্ছে বহু মানুষের তথা নেটনাগরিকদের।

Facebook Twitter Email Whatsapp

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *