রাতভর লাইনে দাঁড়িয়ে থেকেও মিলল না ভ্যাকসিন, বিক্ষোভ শান্তিপুরে

Mysepik Webdesk: করোনা ভ্যাকসিনের দ্বিতীয় ডোজ নেওয়ার জন্য মোবাইলে মেসেজ এসেছিল। কিন্তু রাতভর লাইনে অপেক্ষা করে থাকা সত্ত্বেও সকাল ১০টা নাগাদ জানিয়ে দেওয়া হল ভ্যাকসিন নেই। এরপরেই দূর-দূরান্ত থেকে যানবাহন ভাড়া করে ভ্যাকসিন নিতে আসা মানুষজন হাসপাতালের সামনেই বিক্ষোভে ফেটে পড়েন। রবিবার সকালে চাঞ্চল্যকর ঘটনাটি ঘটেছে শান্তিপুর স্টেট জেনারেল হাসপাতালে।

আরও পড়ুন: রাজ্যে চারদিনে করোনা আক্রান্ত আট শিশু, তৃতীয় ঢেউ?

এই ঘটনা প্রসঙ্গে হাসপাতালের সুপার তারক বর্মন জানান, “মোবাইলে মেসেজ পাওয়ার অর্থ হল ভ্যাকসিন গ্রাহককে তার ভ্যাকসিন নেওয়ার বিষয়ে সতর্ক করে দেওয়া। তার মানে এটা নয় যে, পরের দিনই হাসপাতালে ভ্যাকসিন দেওয়া হবে। সাধারণত ভ্যাকসিন যেদিন দেওয়া হয়, তার আগের দিন বিভিন্ন মাধ্যমে গ্রহীতাকে জানিয়ে দেওয়া হয়। বর্তমানে যাদের ভ্যাকসিন নেওয়ার অগ্রাধিকার রয়েছে, তাদেরকেই শুধুমাত্র কোভ্যাকসিনের প্রথম ডোজটি দেওয়া হচ্ছে।”

আরও পড়ুন: বাবুলের বিরুদ্ধে চরম দুর্নীতির অভিযোগে বিজেপি ছেড়ে তৃণমূলে ৩ হাজার কর্মী

অন্যদিকে দীর্ঘসময় লাইনে দাঁড়িয়ে থাকা ভ্যাকসিন গ্রহীতাদের দাবি, তাঁরা মোবাইলে মেসেজ পেয়ে তবেই আগের দিন রাত থেকে লম্বা লাইনে দাঁড়িয়ে রয়েছেন। এঁদের মধ্যে অনেকেই রয়েছেন, যাদের ইতিমধ্যেই দু’টি ডোজের মধ্যে ৮৪ দিনের ব্যবধান প্রায় শেষ হতে চলেছে। অনেকেই দূর-দূরান্ত থেকে ভ্যাকসিন নেওয়ার জন্য যানবাহন ভাড়া করে হাসপাতালে এসেছেন। সেক্ষেত্রে ভ্যাকসিন না পেয়ে ফিরে যাওয়ার অর্থ চরম হয়রানির শিকার হওয়া। তাছাড়া হাসপাতালের সামনে ভ্যাকসিনের জন্য বহু মানুষের জমায়েত করোনা আবহে যথেষ্ট ঝুঁকিপূর্ণ।

Facebook Twitter Email Whatsapp

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *