কোপায় লড়াই দুই চিরপ্রতিদ্বন্দ্বীর, মেসি কি পারবেন খরা কাটাতে?

সায়ন ঘোষ

আগামী ১০ জুলাই কোপা আমেরিকার ফাইনালে মুখোমুখি হচ্ছে দুই চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী, ব্রাজিল ও আর্জেন্টিনা। এই ফাইনালকে ঘিরে গোটা বিশ্ব সেই চিরাচরিত ব্রাজিল ও আর্জেন্টিনা দুই ভাগে বিভক্ত হয়েছে। পেলে না মারাদোনা, কে শ্রেষ্ঠ সেই চিরাচরিত বহু বিতর্কিত বিষয় আরও একবার সামনে চলে এসেছে।

এই বছর তিতের প্রশিক্ষণে ব্রাজিল দলগত সংহতির এক অপূর্ব নিদর্শন রেখেছে। ফাইনালে ব্রাজিলের দুর্গ আগলাবেন এডারসন। তবে অ্যালিসন বেকারকে নামালেও অবাক হবার কিছু নেই। সাম্প্রতিক সময়ে তাঁদের দুই গোলকিপার দুর্দান্ত ফর্মে আছেন। রক্ষণভাগে রয়েছে বর্ষীয়ান ডিফেন্ডার থিয়াগো সিলভা। থিয়াগো সিলভার সঙ্গে থাকবেন মার্কুইনহোস। দুই উইং ব্যাকে থাকবেন ডানিলো ও রেমান লোদি। চার ডিফেন্ডারের সামনে ক্যাসেমিরো ও ফ্রেড। বর্তমান সময়ে ক্যাসেমিরোকে সেরা ডিফেন্সিভ মিডিও হিসেবে ধরা হয়। আর্জেন্টিনার সাপ্লাই লাইন কাটার দায়িত্ব থাকবে ক্যাসেমিরোর উপর। অন্যদিকে, ফ্রেডও ফর্মে রয়েছেন। সামনে তিন অ্যাটাকিং মিডিও নেইমার, লুকাস পাকুয়েতা ও এডেরসন। নেইমার ব্রাজিল দলের প্রাণভোমরা। ব্যক্তিগত নৈপুণ্যে একাই ম্যাচের রং বদলে রাখার ক্ষমতা রাখেন বর্তমান বিশ্বের অন্যতম সেরা বল প্লেয়ার নেইমার। আপফ্রন্টে থাকবে রিচার্লিসন। তবে রবার্তো ফিরমিনোর মতো গোলগেটারকেও খেলাতে পারেন তিতে।

আরও পড়ুন: রক্তক্ষরণ নিয়ে খেলে দেশের প্রতি দায়বদ্ধতা কাকে বলে, তা দেখালেন মেসি

অন্যদিকে, আর্জেন্টিনার দুর্গ আগলাবেন এমিলানো মার্টিনেজ। গত ম্যাচে টাইব্রেকারে জেতানোর পর তাঁকে সের্জিও রোমেরোর যোগ্য উত্তরসূরি ভাবা হচ্ছে। আর্জেন্টিনার রক্ষণভাগে নেতৃত্ব দেবেন অভিজ্ঞ নিকোলাস ওটামেন্ডি। ওটামেন্ডির উপরে দায়িত্ব থাকবে নেইমারকে আটকানোর। ওটামেন্ডির সঙ্গে থাকবেন পেজেল্লা। দুই উইং ব্যাকে থাকবেন মোলিনা ও টাগ্লিফ্লিকো। মাঝমাঠে রড্রিগো ডে পল, জিওভান্নি লে সেলসো, গুইডো রড্রিগেজ খেলবেন। পরিবর্ত রূপে আসতে পারেন এঞ্জেল ডি মারিয়া। আপফ্রন্টে লিও মেসির সঙ্গে থাকবেন লাউটারো মার্টিনেজ ও নিকোলা গঞ্জালেস। পরিবর্ত হিসাবে সের্জিও আগুয়েরোকে নামাতেই পারে আর্জেন্টিনা।

আরও পড়ুন: ‘ক্যাপ্টেনে’র জন্মদিন

ব্রাজিল ও আর্জেন্টিনা মোট ১০৭ বার মুখোমুখি হয়েছে। আর্জেন্টিনা ৩৯ বার ও ব্রাজিল ৪৩ বার জিতেছে। কোপাতে দুই দলের মোট ৩৩ বার সাক্ষাৎকার হয়েছে। ব্রাজিল ১০ বার ও আর্জেন্টিনা ১৫ বার জিতেছে। এর আগে টানা দু’বার কোপা আমেরিকা ফাইনালে চিলির কাছে হেরেছিল আর্জেন্টিনা। এবারে সেই খরা ঘোচাতে মরিয়া থাকবে তারা। অন্যদিকে, গতবারের চ্যাম্পিয়ন ব্রাজিলের লক্ষ্য থাকবে ট্রফি ধরে রাখা। সবমিলিয়ে এক রোমহর্ষক ফাইনাল দেখার আশায় ফুটবলবিশ্ব।

Facebook Twitter Email Whatsapp

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *