কাশ্মীর ইস্যুতে ভারতকে সমর্থন ফ্রান্সের

Mysepik Webdesk: ফ্রান্স কাশ্মীর ইস্যুতে প্রকাশ্যে ভারতকে সমর্থন জানিয়েছে। ফরাসি রাষ্ট্রপতির উপদেষ্টা জানিয়েছেন যে, কাশ্মীর ইস্যুতে ফ্রান্স ভারতের সমর্থনকারী এবং চিনকে রাষ্ট্রসংঘ সুরক্ষা কাউন্সিল (ইউএনএসসি) কোনও ‘প্রক্রিয়াজাতীয় খেলা’ খেলতে দেয়নি। এর আগে আমেরিকাও চিন ও কাশ্মীরের বিষয়ে ভারতকে সমর্থন জানিয়েছিল। ভারত-চিন সীমান্ত বিরোধ নিয়ে মার্কিন রাষ্ট্রদূতের বক্তব্যের পরে ফরাসি রাষ্ট্রপতি এমানুয়েল মাক্রোঁর কূটনীতিক উপদেষ্টা এমানুয়েল বনান বলেছেন, ‘‘চিন যদি বিধিভঙ্গ করে, তখন আমাদের খুব দৃঢ় এবং স্পষ্ট হতে হবে। এটিই হল ভারত মহাসাগরে আমাদের নৌবাহিনীর উপস্থিতির কারণ।”

আরও পড়ুন: মার্কিন সংসদে হামলা ট্রাম্পের সমর্থকদের, ৪ জনের প্রাণহানি

বিবেকানন্দ ইন্টারন্যাশনাল ফাউন্ডেশন (ভিআইএফ) আয়োজিত ‘ফ্রান্স অ্যান্ড ইন্ডিয়া: পার্টনারস ইন আ স্টেবল অ্যান্ড প্রসপেরাস ইন্দো-প্যাসিফিক’ শীর্ষক বক্তব্যে তিনি বলেছেন যে, ‘‘ফ্রান্স কোয়াডের (ইউনাইটেড স্টেট, জাপান, অস্ট্রেলিয়া এবং ভারতের একটি দল) কাছাকাছি রয়েছে এবং ভবিষ্যতে তাদের সঙ্গে নৌ মহড়াও চালাতে পারে।” তিনি আরও বলেন, ‘‘রাষ্ট্রসংঘ সুরক্ষা কাউন্সিলে কাশ্মীর ইস্যুতে ফ্রান্স সবসময়ই ভূমিকা রেখেছে এবং চিনকে কোনও প্রক্রিয়াজাতীয় খেলায় অংশ নিতে দেয়নি।”

আরও পড়ুন: হার স্বীকার ট্রাম্পের, বাইডেন অবশেষে পেলেন জয়ের সার্টিফিকেট

ভারত-চিন সীমান্ত বিরোধের বিষয়ে মার্কিন রাষ্ট্রদূতের মন্তব্যের পরে ভারতে চিনা রাষ্ট্রদূত এ নিয়ে আপত্তি জানিয়েছেন। ভারতে চিনের রাষ্ট্রদূত টুইট করেছেন, ‘‘ভারত ও চিন তাদের সীমান্ত বিরোধ নিষ্পত্তি করতে সক্ষম এবং কোনও তৃতীয় দেশ যাতে এর মধ্যে ঢুকে না পড়ে।”

আরও পড়ুন: করোনা ভ্যাকসিন গ্রহণের পরেও ইতালিতে আক্রান্ত এক ডাক্তার

ফ্রেঞ্চ নৌবাহিনী তাইওয়ানে একমাত্র ইউরোপীয় নৌবাহিনী টহল দেওয়ার কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন― ‘‘এটি উসকানি দেওয়া নয়, আন্তর্জাতিক নিয়ম অনুসরণ করার প্রয়োজনীয়তার উপর জোর দেওয়া। আমরা এই সংঘাতকে আরও বাড়িয়ে তুলতে চাই না এবং আমি মনে করি দিল্লির চেয়ে প্যারিসে বসে এ কথা বলা অনেক সহজ, কারণ যখন হিমালয় অঞ্চলে সমস্যা হয় এবং সীমান্ত পাকিস্তানের সঙ্গে জুড়ে থাকে।” 

Facebook Twitter Email Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *