বিশ্ব ফুটবলে স্বপ্নের প্রত্যাবর্তন ঘটাতে চায় হল্যান্ড

সায়ন ঘোষ

বিশ্ব ফুটবলে অন্যতম ভাগ্যহীন দল হল হল্যান্ড। তারা তিনবার বিশ্বকাপ ফাইনাল খেলেও একবার ও চ্যাম্পিয়ন হতে পারেনি। একবার মাত্র ইউরো জিতেছে ১৯৮৮ সালে। অথচ এই হল্যান্ড বিশ্ব ফুটবলকে উপহার দিয়েছিল টোটাল ফুটবলের। যার ধারা আজও অব্যাহত আছে। রবেন, স্নেইডার, ফন পার্সিরা অবসর নেবার পর সাময়িকভাবে হল্যান্ড ফুটবল পিছিয়ে পড়লেও বর্তমানে তারা আবার ফিরে এসেছে নতুনভাবে। কোচ ফ্রাঙ্ক ডি বোয়ের নতুন করে হল্যান্ড দল গড়ে তুলেছেন।

আরও পড়ুন: ‘ক্রিস, ক্রিস, আই লাভ ইউ’: বেলজিয়াম-রাশিয়া ম্যাচে এরিকসেনের ছায়া

এবারের হল্যান্ডের দুর্গ আগলাবেন মার্টিন স্টেকেলবার্গ। সঙ্গে রয়েছেন টিম ক্রুল ও মার্কো বাইজোট। হল্যান্ডের রক্ষণ বর্তমানে বিশ্বের সবচেয়ে সেরা রক্ষণ। কারণ তাদের ডিপ ডিফেন্সে বর্তমান বিশ্বের দুই সেরা ডিফেন্ডার ভার্জিল ভ্যান ডাইক ও ম্যাথিয়াস ডি লিট রয়েছে। তবে ইউরো শুরুর আগে তাদের অধিনায়ক ভার্জিল ভ্যান ডাইক চোটের জন্য দলে না থাকায় বেশ কিছুটা চাপে হল্যান্ড। তবে ম্যাথিয়াস ডি লিট ও স্টিফেন ডে ভার্জিকে বাড়তি দায়িত্ব নিতে হবে। এছাড়াও ড্যানি ব্লাইন্ড, নাথান আকের মতো ডিফেন্ডার দলে রয়েছেন।

আরও পড়ুন: আপাতত স্থিতিশীল এরিকসন: ড্যানিশ তারকার জন্য প্রার্থনায় গোটা ফুটবল বিশ্ব

হল্যান্ড মিডফিল্ডের বড় ভরসা বার্সেলোনার তরুণ প্রতিভা ফ্রেঙ্কি ডি ইয়ং। এছাড়াও অধিনায়ক জর্জিনহো উইনালডামের দিকে তাকিয়ে কমলা ব্রিগেড। এছাড়াও কুইন্সি প্রমিসের মতো অভিজ্ঞ মিডিও হল্যান্ড দলে আছেন। আপফ্রন্টে হল্যান্ড তাকিয়ে থাকবে মেম্ফিস ডিপের দিকে। সঙ্গে আছেন লুক ডে জং ও স্টিফেন বার্গুইস। এবারের ইউরো অভিযান হল্যান্ড শুরু করছে ইউক্রেনের বিপক্ষে। তারপর তারা ১৭ তারিখ অস্ট্রিয়া ও ২১ তারিখ উত্তর ম্যাসিডোনিয়ার মুখোমুখি হবে। এখন দেখার হল্যান্ড নিজেদের চোকার্স তকমা ঘুচিয়ে রাজকীয় প্রত্যাবর্তন ঘটাতে পারে কিনা।

হল্যান্ড দল

গোলরক্ষক

মার্টিন স্টেকেলবার্গ (আয়াক্স), টিম ক্রুল (নরউইচ সিটি) মার্কো বাইজোট (আলকামার)

রক্ষণ

নাথান আকে (ম্যান সিটি), ড্যানি ব্লাইন্ড (আয়াক্স), ম্যাথিয়াস ডি লিট (জুভেন্টাস), স্টিফেন ডি ভার্জি (ইন্টার), ডেনজিল ডুমফ্রিস (আইন্দোভাইন), প্যাট্রিক ভান আনহোল্ট (ক্রিস্টাল প্যালেস), জান ভোল্টেমান (ব্রিংটন), ওয়েন উইন্ডাল (আলকামার)

মাঝমাঠ

ফ্রেঙ্কি ডি ইয়াং (বার্সেলোনা), মার্টিন ডি রুন (আটলান্টা), রিয়ান গ্রিভেনবার্গ (আয়াক্স), ডে ক্লাসেন (আয়াক্স), টিউন কোপমিনারস (আলকামার), কুইন্সি প্রমিস (স্পার্টামস্কো), জুরেন টিম্বার (আয়াক্স), জর্জিনহো উইনালডাম (লিভারপুল)

ফরোয়ার্ড

স্টিফেন বার্গুইস (ফেনেয়ুর্ড), লুক ডে জং (সেভিয়া), মেম্ফিস ডিপে (লিঁও), কডি গাকপো (আইন্দোভাইন), ডনিয়েল মালিন (আইন্দোভাইন), ওয়ুটো ওয়েঘোস্ট (উলসবার্গ)

কোচ
ফ্রাঙ্ক ডি বোয়ের

Facebook Twitter Email Whatsapp

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *