Latest News

Popular Posts

‘বিজেপি করতে পারছিলাম না, তাই ফিরলাম তৃণমূলে’, ঘাসফুল শিবিরে যোগদান করার পর জানালেন মুকুল রায়

‘বিজেপি করতে পারছিলাম না, তাই ফিরলাম তৃণমূলে’, ঘাসফুল শিবিরে যোগদান করার পর জানালেন মুকুল রায়

Mysepik Webdesk: অবশেষে সব জল্পনার অবসান ঘটিয়ে তৃণমূল ছেড়ে বিজেপি যোগদান করার পর প্রায় সাড়ে তিন বছর পর ফের তৃণমূলে যোগদান করলেন মুকুল রায়। এদিন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উপস্থিতিতে তৃণমূল ভবনে মুকুল রায় ও তাঁর পুত্র শুভ্রাংশু রায়কে উত্তরীয় পরিয়ে স্বাগত জানালেন অভিষেক বন্দ্য়োপাধ্য়ায়। পুরনো দলে ফিরে প্রথম প্রতিক্রিয়া দিলেন মুকুল রায়। তিনি বলেন, “বিজেপি করতে পারছিলাম না, তাই তৃণমূলে ফিরলাম।” তবে বিজেপি কেন ছাড়লেন তিনি, তা পরে বিস্তারিতভাবে জানাবেন বললেন তিনি।

আরও পড়ুন: ‘ঘর ওয়াপসি’ মুকুল রায়ের

জল্পনা আগেই ছিল। বিধানসভা নির্বাচনে তৃণমূল কংগ্রেসে জয়ের পর সেই জল্পনা আরও বাড়ছিল। এদিন দুপুরে ‘তৃণমূল ভবনে যাচ্ছি’ বলে সল্টলেকের বাড়ি থেকে তৃণমূল ভবনের উদ্দেশ্যে রওনা দেন বিজেপির বিধায়ক মুকুল রায়। তাই মুকুল রায়ের তৃণমূল কংগ্রেসে ফেরাটা যে স্রেফ সময়ের অপেক্ষা, তা বোঝাই গিয়েছিল। দুপুর আড়াইটার ঠিক আগে তিনি পুত্র শুভ্রাংশু রায়কে নিয়ে তৃণমূল ভবনে পৌঁছন। এরপর মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও চলে আসেন তৃণমূল ভবন।

আরও পড়ুন: ‘বিজেপি থেকে আবর্জনা দূর করুন’, মুকুলের তৃণমূল যোগদানের আগেই টুইট করলেন বৈশালী ডালমিয়া

এদিন বেলা সাড়ে তিনটায় তৃণমূল কংগ্রেসের দলীয় বৈঠক ছিল। মূলত দলত্যাগীদের নিয়ে এই বৈঠকে আলোচনা হওয়ার কথা ছিল। সেই বৈঠকেই ২০১৭ সালে তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে নাম লেখানো মুকুল রায় তাঁর পুরনো পার্টিতে ফিরলেন। সম্প্রতি তৃণমূল কংগ্রেসে মুকুলের ঘর ওয়াপসি নিয়ে জল্পনা তুঙ্গে ছিল। এর মধ্যে আবার মুকুল রায়ের অসুস্থ স্ত্রীকে দেখতে হাসপাতালে গিয়েছিলেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। তাছাড়াও তৃণমূলের অন্দরে একথাও উঠেছিল যে, মুকুল বিজেপিতে গেলেও মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সম্পর্কে কোনও রকম বেফাঁস মন্তব্য বা বাজে কথা বলেননি। তার ওপর ইতিমধ্যেই মুকুল-পুত্র শুভ্রাংশু রায় বিজেপিকে আত্মসমালোচনার পরামর্শ দিয়েছিলেন। এসব ঘটনাই পরোক্ষে বুঝিয়ে দিয়েছিল যে, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে আবারও কাজ করতে দেখা যাবে মুকুল রায়কে।

টাটকা খবর বাংলায় পড়তে লগইন করুন www.mysepik.com-এ। পড়ুন, আপডেটেড খবর। প্রতিমুহূর্তে খবরের আপডেট পেতে আমাদের ফেসবুক পেজটি লাইক করুন। https://www.facebook.com/mysepik

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *