ফরম্যাট ছোট করার পক্ষে আইএফএ: তাহলে কি ইস্টবেঙ্গল কলকাতা ফুটবল লিগ খেলবে না?

Mysepik Webdesk: ইন্ডিয়ান ফুটবল ফেডারেশন (আইএফএ) কলকাতা ফুটবল লিগ ২০২১-২২ আয়োজনের জন্য, সবক’টি প্রিমিয়ার ডিভিশন ক্লাবের কর্তাদের সঙ্গে একটি জরুরি বৈঠক করে গত বৃহস্পতিবার। মূল উদ্দেশ্য ছিল, বর্তমান পরিস্থিতি মাথায় রেখে এই লিগ আয়োজনের ব্লুপ্রিন্ট তৈরি করা। কিন্তু বৈঠকে ইস্টবেঙ্গলের তরফ থেকে কেউ উপস্থিত ছিলেন না। আশঙ্কা করা হচ্ছে যে, কলকাতা লিগে মোহন-ইস্ট দ্বৈরথ, যা সাধারণত মরশুমের প্রথম ডার্বি হয়ে থাকে, সেটা এবছর আদৌ হবে কিনা।

আরও পড়ুন: ইকুয়েডরকে হারিয়ে সেমিফাইনালে পৌঁছনো আর্জেন্টিনার সামনে এবার কলম্বিয়া

এই বৈঠকে এটিকে মোহনবাগান, মহমেডান স্পোর্টিং সহ অন্যান্য সমস্ত ক্লাবের প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন। কিন্তু ইস্টবেঙ্গলের তরফ থেকে কেউ এই বৈঠকে যোগ দেননি। তাদের বাদ দিয়েই আইএফএ বৈঠকটি পরিচালনা করতে বাধ্য হয়। ইস্টবেঙ্গলের একজন প্রতিনিধিকে বৈঠক শুরুর আগে দেখা যায়। কোনও অজানা কারণেই তিনি মূল বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন না। নিজের উপস্থিতির প্রমাণ না দিয়েই তিনি সভাস্থল ত্যাগ করেন। কারণ অজানা হলেও মনে করা হচ্ছে যে, তিনি নিজেকে ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের প্রতিনিধি হিসেবে পরিচয় দিতে চাননি। তাই ইস্টবেঙ্গলকে বাদ রেখেই বৈঠক হয়। সভায় কীভাবে লিগ আয়োজন করা যেতে পারে, তা নিয়ে বিস্তারিত আলোচনাও হয়। উল্লেখযোগ্য যে, গতবছর কোভিড-১৯ অতিমারির কারণে কলকাতা লিগ আয়োজন করা সম্ভব হয়নি। বারবার লিগের তারিখ পিছিয়ে দেওয়ার ফলে আইএফএ-র কাছে লিগ আয়োজন করার মতো যথেষ্ট সময় ছিল না।

আরও পড়ুন: দশ জনে খেলে চিলিকে হারিয়ে কোপার শেষ চারে ব্রাজিল

আইএফএ সম্পূর্ণ লিগ আয়োজনের প্রস্তাব রাখে। এটিকে মোহনবাগানের পক্ষ থেকে অনুরোধ করা হয় যে, ফরম্যাট তৈরির ক্ষেত্রে যেন বর্তমান পরিস্থিতিকে মাথায় রাখা হয়। দেখার বিষয় যে, এখনও পশ্চিমবঙ্গে করোনা বিধিনিষেধ চলছে। হাজার হাজার মানুষ এই অতিমারির সময়ে নিপীড়িত হয়েছেন। সমস্ত কিছু দেখেই লিগের ফরম্যাট ছোট করার প্রস্তাব দেয় এটিকে মোহনবাগান। এছাড়াও এটিকে মোহনবাগানের অন্য সমস্যা আছে। আগস্টে তারা বিদেশ যাবে এএফসি কাপে অংশগ্রহণ করতে। অতিমারির কারণেই জুন থেকে পিছিয়ে এএফসি কাপ আগস্টে করা হয়েছে। এছাড়াও নভেম্বরে শুরু হবে আইএসএল। যার জন্য সমস্ত ক্লাবকে ২ মাস আগে থেকেই বায়ো-বাবলের সুরক্ষায় চলে যেতে হবে। তাই কলকাতা লিগ ফরম্যাট তাদের ক্ষেত্রে সমস্যার কারণ হয়ে দাঁড়াতে পারে।

আরও পড়ুন: দেশ, সীমান্ত এবং মিলখা সিংয়ের রূপকথা

এর ফলে কলকাতা লিগ আয়োজনের জন্য মাত্র ৫০ দিন সময় পাওয়া যাচ্ছে। এটিকে মোহনবাগানের পক্ষ থেকে অনুরোধ করা হয় যে, ফরম্যাট ছোট করে গতবছরের আই লিগের মতো করা হোক। এতে সমস্ত দলকে দু’টি গ্রুপে ভাগ করে নেওয়া যাবে। এর ফলে ম্যাচের সংখ্যা কমে যাবে এবং সময়ও অনেক কম লাগবে। উল্লেখ্য যে, উক্ত বৈঠকে এটিকে মোহনবাগানের প্রতিনিধিত্ব করেছিলেন দেবাশিস দত্ত এবং বিনয় চোপড়া।

আরও পড়ুন: ফুটবল পরিসরে উপেক্ষিত দুই ইতালীয় ‘তরুণে’র গল্প

আইএফএ কথা দিয়েছে যে, তারা এই প্রস্তাব বিচার করে দেখবে। তাছাড়াও সিদ্ধান্ত নেওয়ার আগে অন্য সমস্ত ক্লাবের অনুরোধও খতিয়ে দেখা হবে। এখনও অবধি, পরিস্থিতি অনুযায়ী এবছর কলকাতা লিগ অনুষ্ঠিত হওয়ার প্রবল সম্ভাবনা আছে। তবে ইস্টবেঙ্গল এখনও শ্রী সিমেন্টের সঙ্গে সইসাবুদের ক্ষেত্রে আইনি জটিলতায় ফেঁসে আছে। সমস্যা মিটে যাবে, এমনটা শোনা গেলেও তার আভাস এখনও পাওয়া যায়নি। অন্যদিকে, বৃহস্পতিবারের ঘটনা এই জল্পনায় আরেকটি মাত্রা যোগ করল। এখন সময়েই বলবে যে, দর্শকরা মরশুমের প্রথম ডার্বি কলকাতা লিগে দেখার সুযোগ পাবেন কিনা!

Facebook Twitter Email Whatsapp

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *