ভোটের আগে BJP তে যোগ দেওয়ার পাশাপাশি ছিল ‘পদ্মশ্রী’র অফারও, বিস্ফোরক বলাগড়ের তৃণমূল বিধায়ক

Mysepik Webdesk: একেবারে সাধারণ জীবনযাত্রায় অভ্যস্ত হলেও মাঝেমধ্যে সোশ্যাল মিডিয়ায় তাঁর পোস্ট রীতিমতো মাথাব্যাথার কারণ হয়ে দাঁড়ায় বাংলার রাজনৈতিক দলগুলির। কয়েকদিন আগেই আগেই একটি পোস্ট ব্যাপক অস্বস্তিতে ফেলেছিল রাজ্যের শাসকদল তৃণমূল কংগ্রেসকে। তবে, এবার তাঁর পোস্টটি অবশ্য শাসকদল নয়, বরং অস্বস্তিতে ফেললো রাজ্যের প্রধান বিরোধী দল বিজেপিকে। পোস্টে তিনি বলেন, বাংলার একুশে নির্বাচনের আগে নাকি তাঁকে বিজেপিতে যোগ দেওয়ার আমন্ত্রণ দেওয়া হয়েছিল। শুধু তাই নয়, তাঁকে কেন্দ্রীয় সরকারের ‘পদ্মশ্রী’ পুরস্কারের প্রলোভনও দেখানো হয়েছিল।

আরও পড়ুন: কলকাতা-দিঘা রুটে বাসের সঙ্গে মালবাহী গাড়ির সংঘর্ষ, মৃত ৩

ফেসবুক পোস্টে তিনি লেখেন, “গত বছর তখনো বাংলার বিধান সভার নির্বাচনের দিন ক্ষন ঘোষনা হয়নি। আমাকে নাগপুরের বিশ্বাস বাবু ফোন করে বলেছিলেন অনেক দিন ধরে লিখছেন, অনেক পুরস্কারও পেয়েছেন। তবে এবার আপনার একটা কেন্দ্রীয় সরকারের পুরস্কার পাওয়া দরকার। আপনি যদি বিজেপিতে যোগ দেন তাহলে আপনাকে পদ্মশ্রী পাইয়ে দিতে পারি। নীতিগত কারনে তার কথায় সেদিন কর্নপাত করিনি। যে পুরস্কার কংঙ্গনা রানাবতের মতো লোক পায় আর যাইহোক সে পুরস্কার আমার সম্মান বৃদ্ধি করতো না।”

আরও পড়ুন: প্রচুর সংখ্যক স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ডের আবেদনপত্র বাতিল করেছে ব্যাঙ্ক, ক্ষুব্ধ নবান্ন

প্রসঙ্গত, একদা হিন্দু উদ্বাস্তু হিসেবে তৎকালীন পূর্ব পাকিস্তান থেকে ভারতে চলে এসেছিলেন মনোরঞ্জন ব্যাপারি ও তাঁর পরিবার। তখন থেকেই জীবনযুদ্ধ চালিয়ে গিয়েছেন দলিত সম্প্রদায়ের এই লেখক। সংসার চালাতে কখনও চা বেচেছেন তো কখনও ডোমের কাজ করেছেন, কখনও বা স্কুলে রাধুঁনির কাজও করেছেন। কিছুদিন রিকশাও টেনেছেন মনোরঞ্জন ব্যাপারি। তাঁর সাদামাটা জীবনযাপনের উপর ভর করেই কঠিন বলাগড় কেন্দ্র থেকেও জিতে যায় তৃণমূল।

Facebook Twitter Email Whatsapp

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *