নেপালের বিরুদ্ধে পিছিয়ে থেকে ড্র করল ভারত

সম্রাট মিশ্র

কাঠমান্ডু-র দশরথ স্টেডিয়ামে আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচে মুখোমুখি হয়েছিল দুই প্রতিবেশী। ফিফা ক্রমতালিকার ১৬৮-তম স্থানে থাকা নেপাল নাস্তানাবুদ করল ১০৫-তম স্থানে থাকা ভারত-কে। প্রথমার্ধে পিছিয়ে পড়লেও, দ্বিতীয়ার্ধে অনিরুদ্ধ থাপার গোলে ড্র করে সম্মান রক্ষা করল ভারতীয় দল। ম্যাচ ১-১ গোলে শেষ হলেও ভারতীয় ফুটবল সমর্থকদের হতাশ করল ইগর স্টিম্যাচের দল।

অক্টোবরে মালদ্বীপে অনুষ্ঠিত সাফ কাপের প্রস্তুতি হিসেবে নেপালের বিরুদ্ধে দুটি প্রীতি ম্যাচ খেলতে কাঠমান্ডুতে গিয়েছে ভারতীয় ফুটবল দল। তার জন্য কলকাতায় ১৬ই অগাস্ট থেকে প্রস্তুতি শিবিরও করেছিলেন কোচ ইগর স্টিম্যাচ। আজ প্রথম প্রস্তুতি ম্যাচে দাপটের সাথেই শুরু করেছিলেন সুনীল-রা। ম্যাচ যত এগোতে থাকে খেলাটা আস্তে আস্তে ধরে নেয় নেপাল। ম্যাচের ৩৬ মিনিটের মাথায় চিঙ্গেলসানা সিং-এর ব্যাকপাস গুরপ্রীতের কাছে পৌঁছানোর আগেই বলের নাগাল পেয়ে যান নেপালের অঞ্জন বিস্ট, তিনি গুরপ্রীত-কে কাটিয়ে ফাঁকা বক্সে গোল করে এগিয়ে দেন নেপালকে। রক্ষণের ভুলে আবার ভুগতে হল ভারতীয় দল কে। গোল পেয়ে আরও আক্রমণাত্মক খেলতে শুরু করে গোর্খালীরা। প্রথমার্ধে ভারতীয় দল গোলের লক্ষ্যে একটাও শট-ও রাখতে পারেনি। ভারতের আক্রমণ গুলো বারবার হারিয়ে যাচ্ছিল নেপালের মাঝমাঠে।

দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতে স্টিম্যাচ দলে কয়েকটি পরিবর্তন আনেন। অনিরুদ্ধ থাপা, রহিম আলি এবং সাহাল আব্দুল সামাদ মাঠে নামায় ভারতীয় দলের খেলায় গতি আসে। ম্যাচের ৬০ মিনিটে সুনীলের শট নেপালের গোলরক্ষক কিরণ লিম্বু ঠিক মতো সেভ করতে না পারায় রিবাউন্ড হয়ে ফিরে আসে অনিরুদ্ধ থাপার কাছে, থাপা গোল করে সমতা ফেরান। এদিনের খেলায় সুনীল নিষ্প্রভ, তাঁকে পুরোপুরি মার্ক করে রেখেছিলেন নেপালের রক্ষণভাগের খেলোয়াড়রা। ৭১ মিনিটের মাথায় সুনীলের পরিবর্তে বিপিন-কে নামালেও কাজের কিছু কাজ হয়নি। শেষের দিকে রহিম আলি গোলের সুবর্ণ সুযোগ নষ্ট করেন।

আজ নেপালের বিরুদ্ধে প্রথম ম্যাচে জাতীয় দলে অভিষেক হয় রহিম আলি এবং সেরিটন ফার্নান্ডেজ। বাংলার রহিম আলি জীবনের প্রথম আন্তর্জাতিক ম্যাচেই গোল করতে পারতেন, যদি না তাঁর শটটা এদিন লক্ষ্যভ্রষ্ট হত। নেপালের বিরুদ্ধে ভারতের পরের প্রস্তুতি ম্যাচে আগামী রবিবার। ইগর স্টিম্যাচের দল আগামী ম্যাচে কতটা ঘুরে দাঁড়াতে পারে সেটাই এখন দেখার!

Facebook Twitter Email Whatsapp

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *