মঙ্গলের মাটির তলায় প্রাণের অস্তিত্ব ছিল, বিজ্ঞানীদের চাঞ্চল্যকর দাবিতে আলোড়ন বিশ্বজুড়ে

Mysepik Webdesk: পৃথিবীর সমতুল্য বিকল্প বাসস্থানের সন্ধানে বহুদিন ধরেই বিজ্ঞানীরা খোঁজ চালিয়ে যাচ্ছেন। আর এই খোঁজের ফসল হিসেবে উঠে এসেছে মঙ্গল গ্রহের নাম। সেই কারণেই মঙ্গলে প্রাণের সন্ধানের খোঁজে বিজ্ঞানীরা বহুদিন ধরেই গবেষণা করে এসেছেন। আদৌ কি মঙ্গলে প্রাণের অস্তিত্ব আছে কিংবা কোনও কালে ছিল কিনা, সেই চিন্তাই রাতের ঘুম কেড়েছে বিজ্ঞানীদের। কিন্তু এখনো পর্যন্ত সেটা বিজ্ঞানীদের কাছে পরিষ্কার নয়।

আরও পড়ুন: অচল হয়ে গেল পৃথিবীর দিকে ধেয়ে আসা গ্রহাণুর খোঁজ দেওয়া টেলিস্কোপ, চিন্তায় বিজ্ঞানীরা

NASA's Perseverance rover launches on mission to find life on Mars

সম্প্রতি একটি গবেষণায় ফের উঠে এসেছে চাঞ্চল্যকর তথ্য। বিজ্ঞানীদের ফের দাবি মঙ্গলে রয়েছে প্রাণ কিন্তু তা মাটির অনেক গভীরে। সম্প্রতি সাইন্স অ্যাডভান্সড নামক একটি জার্নালে প্রকাশিত হয়েছে এই বিষয়টি। সেই জার্নালে বিজ্ঞানীরা তাদের মতামত ও বিভিন্ন ধারণা প্রকাশ করেছেন। বিজ্ঞানীরা গবেষণা করে দেখেছে যে মঙ্গলের ভূগর্ভস্থ চাপের কারণে মোটা বরফের চাদর গলে যাওয়ায় মঙ্গলের ভূপৃষ্ঠে থেকে অনেক গভীরে এই একটা সময় প্রাণের অস্তিত্ব ছিল।

আরও পড়ুন: প্লাজমা-পোয়েম-প্রেয়ার একসূত্রে গেঁথেছে জগদীশ-রবি ঠাকুর-স্বামীজিকে

मंगलयान प्रोजेक्ट को किस तरह अंजाम दिया गया था? India's mars orbiter  mission documentary in hindi - YouTube

তবে বিজ্ঞানীদের বক্তব্য অনুযায়ী ঠিক কত বছর আগে প্রাণের অস্তিত্ব ছিল সেটা খতিয়ে দেখছেন তাঁরা। ৪১০ থেকে ৩৭০ কোটি বছরের মধ্যে কিনা সেটার আন্দাজ এখনো পাওয়া যায়নি। এখন ৪০০ কোটি বছর আগে মঙ্গলের গভীরে যদি জলের অস্তিত্ব থেকে থাকে তাহলে সেখানেই ছিল প্রাণের উৎস। গবেষকদের ধারণা, একটা সময় মাটির গভীরে তেমন এক অনুকূল পরিস্থিতি তৈরী হওয়ার যে পরিবেশ পাওয়া গেছে, সেটার ওপর নির্ভর করেই এই ধারণা পোষণ করছেন তাঁরা।

Facebook Twitter Email Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *