ইয়াসে ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য ‘দুয়ারে ত্রাণ’ প্রকল্পের ঘোষণা মমতার

Mysepik Webdesk: শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় ইয়াসের তান্ডবে বাংলার উপকূলবর্তী এলাকাগুলিতে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। এদিন নবান্ন থেকে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানান, ইয়াসের তান্ডবে বাংলায় অন্তত ১৫ হাজার কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে। এবার সেই ক্ষতিগ্রস্থ মানুষদের পাশে দাঁড়ানোর বার্তা দিলেন মুখ্যমন্ত্রী। ‘দুয়ারে সরকারের’ মতোই ‘দুয়ারে ত্রাণ’ নামক নতুন একটি প্রকল্পের ঘোষণা করলেন তিনি। আমফানের থেকে শিক্ষা নিয়ে এবার আরও স্বচ্ছতা আনতে জোর দেওয়ার পাশাপাশি তিনি জানান, ত্রাণ বিলিতে রাজ্যের ১ হাজার কোটি টাকা খরচ হবে।

আরও পড়ুন: ইয়াসে রাজ্যের ক্ষয়ক্ষতি নিয়ে কাল বৈঠকে বসবেন মোদি-মমতা

বৃহস্পতিবার নবান্ন থেকে একটি সাংবাদিক বৈঠকে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, “মুখ্যসচিবের নেতৃত্বে একটি টাস্ক ফোর্স তৈরি করা হচ্ছে। রাজ্যের পক্ষ থেকে বন্যা দুর্গতদের ত্রাণের জন্য হাজার কোটি টাকা দেওয়া হচ্ছে। ‘দুয়ারে সরকারের’ মতো ‘দুয়ারে ত্রাণের’ ব্যবস্থা করব। গ্রাম পঞ্চায়েত ও ব্লক পর্যায়ে চলবে এই কর্মসূচি। এই পরিষেবা আগামী ৩ জুন থেকে ১৮ জুন পর্যন্ত চলবে। কারও কথায় কোনও ত্রাণ বণ্টন হবে না। খতিয়ে দেখে তবেই ত্রাণ বিলি করা হবে। ত্রাণের জন্য আবেদন করার বাক্স থাকবে। সেখানে আবেদন করা যাবে। ১৫ দিন ধরে চলবে এই কর্মসূচি। প্রতিটি আবেদনপত্র খুঁটিয়ে দেখা হবে। ১৯ জুন থেকে ৩০ জুন পর্যন্ত সময় নেব। ১ জুলাই থেকে ৮ জুলাইয়ের মধ্যে ত্রাণ ব্যাঙ্কের মাধ্যমে ক্ষতিগ্রস্থদের কাছে পৌঁছে দেওয়া হবে।”

আরও পড়ুন: তৃণমূল সরকারকে ফাঁসাতে বাংলায় ছড়াতে হবে করোনা, ফাঁস হয়ে গেল BJP নেতাদের গোপন চ্যাট

এদিন মমতা আরও বলেন, “অবিলম্বে পানীয় জল সরবরাহ, চিকিৎসা পরিষেবা প্রদান করতে হবে। এর জন্য জনস্বাস্থ্য কারিগরি দফতরকে আমি নির্দেশ দিচ্ছি। ঝড়ের দাপটে ক্ষতিগ্রস্ত রাস্তাগুলি মেরামতিতে পথশ্রী প্রকল্পের অর্থ কাজে লাগানো হবে। ব্লকে ব্লকে বিশেষজ্ঞ ডাক্তারদের পাঠানো হবে।”

Facebook Twitter Email Whatsapp

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *