সিঙ্গুরে মাস্টারমশাই বিজেপি প্রার্থী, রবীন্দ্রনাথ বনাম বেচারাম খেলা হবে এবার সিঙ্গুরে

Mysepik Webdesk: সিঙ্গুর আন্দোলনের অন্যতম নেতা এবং সিঙ্গুর বিধানসভা কেন্দ্রের চারবারের বিধায়ক মাস্টারমশাই রবীন্দ্রনাথ ভট্টাচার্য এবার পদ্ম প্রতীকে একদা তাঁর দলের সতীর্থ বেচারাম মান্নার বিরুদ্ধে নির্বাচনী লড়াইয়ে অবতীর্ণ হতে চলেছেন। এদিন নয়াদিল্লির সদর পার্টি অফিসে কয়েক মিনিট আগে মাস্টারমশাইয়ের নাম বিজেপি প্রার্থী হিসেবে ঘোষিত হয়।

প্রসঙ্গত উল্লেখযোগ্য, এবার বয়সজনিত কারণ দেখিয়ে তৃণমূল কংগ্রেসের তরফে রবীন্দ্রনাথবাবুকে প্রার্থীপদ দেওয়া হয়নি। সেই জায়গায় দল মনোনীত করে হরিপালের বিধায়ক বেচারাম মান্নাকে। আর হরিপাল আসনে তৃণমূল প্রার্থী করা হয় বেচারাম মান্নার স্ত্রী করবী মান্নাকে।

স্বামী-স্ত্রী প্রার্থীপদ নিয়ে জেলা তৃণমূল কর্মী মহলে যথেষ্ট গুঞ্জন তৈরি হয়। এমনিতে রবীন্দ্রনাথ ভট্টাচার্যের সঙ্গে বেচারাম মান্নার বিরূপ সম্পর্ক প্রকাশ্য আলোচনার বিষয়। রবীন্দ্রনাথবাবু কয়েকদিন আগেই ‘তিনি দলত্যাগ করেননি। দলই তাঁকে বর্জন করেছে’― এই অভিযোগ করে বিজেপিতে যোগদান করেন। আজ বিজেপি-র তরফে মাস্টারমশাইকে সিঙ্গুরে তাঁদের প্রার্থী ঘোষণা করে দেওয়ায় ওয়াকিবহাল মহল মনে করছে, রাজ্যের মর্যাদার আসনে এবার যাকে বলে তুল্যমূল্য লড়াই, তা আসন্ন। অনেকেই মজা করে বলছেন, একদা গুরু রবীন্দ্রনাথ ভট্টাচার্য ওরফে মাস্টারমশাইয়ের সঙ্গে শিষ্য বেচারাম মান্নার ‘খেলা হবে’ কৃষক আন্দোলন খ্যাত সিঙ্গুর আসনে।

এদিন বিজেপি প্রার্থী ঘোষণায় আরও চমক ছিল তাঁদের দলের তিন সাংসদ (যার মধ্যে একজন কেন্দ্রীয় প্রতিমন্ত্রীও আছেন) লকেট চ্যাটার্জি, নিশীথ প্রামাণিক এবং বাবুল সুপ্রিয়কে আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনে চুঁচুড়া, দিনহাটা এবং টালিগঞ্জ আসনে প্রার্থী হিসেবে ঘোষণা করা। এদিন বিজেপির আর এক হেভিওয়েট প্রার্থী স্বপন দাশগুপ্তের নাম তারকেশ্বর কেন্দ্র থেকে ঘোষিত হয়েছে। অন্যদিকে, প্রত্যাশামতো রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায় মনোনয়ন পেয়েছেন ডোমজুড় থেকে। আলিপুরদুয়ার আসনে পদ্ম চিহ্নে প্রার্থী হচ্ছেন বিশিষ্ট অর্থনীতিবিদ অশোক লাহিড়ী। চিকিৎসক ইন্দ্রনীল খাঁড়া এবং অভিনেত্রী পায়েল সরকার যথাক্রমে কসবা ও বেহালা পূর্ব কেন্দ্রে কেন্দ্রীয় শাসক দলের তরফে প্রার্থী হতে চলেছেন। রাজনৈতিক বিশ্লেষকদের মতে এ-রাজ্যে ক্ষমতা দখলের বিষয়ে বিজেপি কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব কতখানি মরিয়া, এদিনের প্রার্থী তালিকা তা একদম পরিষ্কার করে দিল।

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Facebook Twitter Email Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *