উপহার হিসেবে পাকিস্তানের পাঠানো আম নিচ্ছে না কোনও দেশই, বিফলে কূটনৈতিক চাল

Mysepik Webdesk: এবারেও কূটনৈতিক চাল খাটল না পাকিস্তানের। উপহার হিসেবে পাঠাতে চাওয়া পাকিস্তানের আম গ্রহণ করতে চাইল না কোনও দেশই। ভারত-আমেরিকা ইতিমধ্যেই পাকিস্তানের পাঠানো আম নিতে অস্বীকার করেছে। তাছাড়া নেপাল, মিশর, কানাডার মতো দেশও এই উপহার পেয়ে খুশি হতে পারেনি। এমনকি ফ্রি-তে পাঠানো ওই আম গ্রহণ করতে অস্বীকার করেছে ‘বন্ধু’ দেশ চিনও। আর এই ঘটনায় রীতিমতো চিন্তার ভাঁজ পড়েছে পাক-প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের কপালে। করোনা অতিমারীর কারণে এই উপহার গ্রহণ করা সম্ভব নয় বলে জানিয়েছে ওই দেশগুলি।

আরও পড়ুন: এক সমুদ্রকন্যা ও তার সমুদ্র-সুতো তৈরির গল্প

প্রত্যেক বছর আমের সিজিনে প্রতিবেশী দেশগুলিকে আম উপহার পাঠানো পাকিস্তানের নতুন কোনও ঘটনা নয়। ভারত এবং পাকিস্তানের জাতীয় ফল আম। প্রতি বছরেই এশিয়ার এই দু’টি দেশে প্রচুর পরিমান আমের উৎপাদন হয়। ২০১৫ সালেও পাকিস্তানের তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফ ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী, তৎকালীন রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায়, প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী অটল বিহারী বাজপেয়ী এবং কংগ্রেস প্রধান সোনিয়া গান্ধীর কাছে আম পাঠিয়েছিলেন।নিউজ ইন্টারন্যাশনালের রিপোর্টে জানানো হয়েছে, গত বুধবার পাকিস্তানের তরফে ৩২টিরও বেশি দেশে উপহার হিসেবে এই আম পাঠানো হয়।

আরও পড়ুন: ভ্যাকসিন নিতেই হবে, নইলে ব্লক করে দেওয়া হবে সিমকার্ড, জারি নতুন নির্দেশিকা

দেশের মধ্যে জঙ্গিদের নিরাপত্তা দেওয়ার পাশাপাশি বিভিন্ন জঙ্গিগোষ্ঠীকে মদত দেওয়ার জন্য ইতিমধ্যেই বিশ্বের দরবারে একাধিকবার পাকিস্তানের মুখ পুড়েছে। রাষ্ট্রসংঘ পাকিস্তানকে ধূসর তালিকাভুক্ত করেছে। ২০১৯ সালের মধ্যে সন্ত্রাসে আর্থিক মদত দেওয়া ও আর্থিক দুর্নীতির অভিযোগ থেকে মুক্ত হতে ২৭টি অ্যাকশন প্ল্যান মেনে চলার জন্য পাকিস্তানকে বলা হয়েছে। চলতি বছরে প্যারিসে অবস্থিত ফিনান্সিয়াল অ্যাকশন টাস্ক ফোর্সের তরফে পাকিস্তানকে স্পষ্ট জানানো হয়েছে, সন্ত্রাসবাদ দমন করতে পাকিস্তানকে যা যা পদক্ষেপ নিতে বলা হয়েছিল, তা এখনও পর্যন্ত করে উঠতে পারেনি তারা। সেক্ষেত্রে পাকিস্তানকে আগামী জুন পর্যন্ত ধূসর তালিকাভুক্তই রাখা হচ্ছে। জুন মাসের পর পরিস্থিতি বিচার করে তবেই পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

Facebook Twitter Email Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *