Latest News

Popular Posts

কোহলি-রোহিত নন, বরং অধিনায়ক হতে পারেন এই তারকা ক্রিকেটার

কোহলি-রোহিত নন, বরং অধিনায়ক হতে পারেন এই তারকা ক্রিকেটার

Mysepik Webdesk: টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের পর বিরাট কোহলি অধিনায়কত্ব ছাড়বেন। যদি ভারত এই টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ না জিততে পারে, তাহলে কোহলি ওয়ানডে অধিনায়কত্বও হারাতে পারেন। ২০২৩ সালে রয়েছে ওয়ানডে বিশ্বকাপ। সেই কথা মাথায় রেখে বিসিসিআই টিম ইন্ডিয়ার ওয়ানডে অধিনায়কত্ব অন্য কোনও তারকা ক্রিকেটারের হাতে অর্পণ করতে পারে। রোহিত শর্মার কথা ধরলে পরবর্তী ওয়ানডে ক্যাপ্টেন হওয়া বেশ কঠিন। এখন রোহিত শর্মার বয়স ৩৪। এমনিতেও বিরাট অধিনায়ক থাকায় ওয়ানডে অধিনায়ক হিসেবে রোহিত শর্মা মাঠে নেমেছেন খুব কমই। ২০২৩ সালের ওয়ানডে বিশ্বকাপ খোদ ভারতে অনুষ্ঠিত হবে। এমন পরিস্থিতিতে বিশেষজ্ঞদের ধারণা, ভারতের অধিনায়ক হওয়ার ক্ষমতা রয়েছে কে এল রাহুলের। বিরাট কোহলি ২৭ বছর বয়সে টেস্টের অধিনায়কত্ব পান। ২৯ বছর বয়সে ভারতের ওয়ানডে এবং টি-টোয়েন্টির অধিনায়ক হয়েছিলেন বিরাট।

আরও পড়ুন: ৭০ শতাংশ বল নিজেদের দখলে রেখেও জিততে পারল না আর্জেন্টিনা

এই দিক থেকে দেখলে বিরাট কোহলির অধিনায়কত্ব উপভোগ করার জন্য পর্যাপ্ত সময় পেয়েছেন। যদিও অনেকেই মনে করছেন ওয়ানডে বিশ্বকাপের কথা মাথায় রেখে বিসিসিআই-এর লক্ষ্য হওয়া উচিত নতুন অধিনায়ক হিসেবে কে এল রাহুলকে প্রস্তুত করা। কারণ নতুন অধিনায়ক হিসাবে কে এল রাহুলের কিন্তু সত্যিই একটা ভালো বিকল্প। ফর্মেও রয়েছেন। ইংল্যান্ডে তাঁর ব্যাটিং দলকে ভরসা জুগিয়েছিল। তাছাড়াও আইপিএল-এর পাশাপাশি আন্তর্জাতিক ৫০ ওভারের ক্রিকেটে ভালো পারফরম্যান্স বজায় রেখেছেন রাহুল।

আরও পড়ুন: মোদি অর্থায়ন বন্ধ করে দিলে পাকিস্তান ক্রিকেট ধ্বংস হয়ে যেতে পারে: রমিজ রাজা

২০২৩ সালের ওয়ানডে বিশ্বকাপের সময় বিরাট কোহলির বয়স হবে ৩৫ বছর। এমন পরিস্থিতিতে ভারতীয় দল হয়তো নতুন অধিনায়কের সন্ধান করতে চলেছে। তাই বিরাট কোহলির জায়গায় কে এল রাহুল টিম ইন্ডিয়ার স্থায়ী অধিনায়ক হতে পারেন। টিএম ইন্ডিয়ায় কে এল রাহুলের স্থান তিনটি ফরম্যাটেই নিশ্চিত। রাহুলের অধিনায়ক হওয়ার সব গুণ বর্তমান। তাছাড়াও ২০২২ সালেও রয়েছে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। যা অস্ট্রেলিয়ায় অনুষ্ঠিত হবে। করোনার কারণে এক বছরের জন্য স্থগিত করা হয়েছিল কুড়ি-বিশের বিশ্বকাপ। তাই কে এল রাহুল অধিনায়ক হলে নিজেকে মেলে ধরার সুযোগ পাবেন। ক্রিকেট বিশ্লেষকরা মনে করছেন যে, কে এল রাহুলের একজন দুর্দান্ত অধিনায়ক হওয়ার যাবতীয় ক্ষমতা রয়েছে। তাছাড়াও তিনি উইকেটরক্ষক হিসাবেও ভারতীয় দলকে ভরসা দিতে পারেন। সঙ্গে ভরসাযোগ্য ব্যাটারও তিনি। আপাতত তাই মনে হচ্ছে যে, পাল্লা ভারী রাহুলের দিকেই।

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *