১.৩২ লক্ষ ধারণক্ষমতা সম্পন্ন বিশ্বের বৃহত্তম ক্রিকেট স্টেডিয়াম উদ্বোধন করলেন রাষ্ট্রপতি কোবিন্দ

studiam 001

Mysepik Webdesk: ক্রিকেট অনুরাগীরা দীর্ঘদিন পর আহমদাবাদের বিশ্বের বৃহত্তম ক্রিকেট স্টেডিয়াম মোতেরাতে ম্যাচ উপভোগ করতে পারবেন। আজ থেকে ভারত ও ইংল্যান্ডের মধ্যে তৃতীয় টেস্ট ম্যাচ। রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ নবনির্মিত ১.৩২ লক্ষ ধারণক্ষমতা সম্পন্ন এই স্টেডিয়ামটির উদ্বোধন করেন। তাঁর সঙ্গে ছিলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ।

আরও পড়ুন: আগামীকাল শুরু ডে-নাইট টেস্ট, তার আগে কী বললেন ক্যাপ্টেন কোহলি

এশিয়ান ক্রিকেট কাউন্সিলের চেয়ারম্যান জে শাহ রাষ্ট্রপতি কোবিন্দকে স্মারক দিয়ে সম্মানিত করেছেন। গুজরাতের গভর্নর আচার্য দেবব্রত, কেন্দ্রীয় ক্রীড়ামন্ত্রী কিরণ রিজিজু, উপ-মুখ্যমন্ত্রী নীতিন প্যাটেল, গুজরাত ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনের (জিসিএ) প্রাক্তন উপপ্রধান ও বর্তমান উপপ্রধান ধনরাজ নাথওয়ানি-ও উপস্থিত ছিলেন।

এক প্রথম শ্রেণির সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমকে গুজরাত ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনের সহ-সভাপতি পরিমল নাথওয়ানি বলেন, “এটি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির ভিশন। প্রধানমন্ত্রী মোদি পুরনো স্টেডিয়ামের সংস্কার করে এটিকে অত্যাধুনিক ও বিশ্বের বৃহত্তম স্টেডিয়াম তৈরি করতে চেয়েছিলেন।”

আরও পড়ুন: বার্সেলোনার হয়ে সর্বোচ্চ ম্যাচ খেলার রেকর্ড মেসির, রয়েছেন রোনাল্ডোর থেকে একধাপ দূরে

প্রায় ৭০০ কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মিত এই স্টেডিয়ামটিতে অলিম্পিক সাইজের একটি সুইমিং পুলও রয়েছে। স্টেডিয়ামে ৪টি ড্রেসিংরুম রয়েছে। পুরো স্টেডিয়াম কমপ্লেক্সটি ৬৩ একর জমিতে। এর বাইরে বক্সিং, ব্যাডমিন্টন, টেনিসের জন্য আলাদা কোর্ট রয়েছে। শুধু তাই নয়, হকি এবং ফুটবলের মাঠও এই ক্যাম্পাসে রয়েছে।

পরিমল নাথওয়ানি আরও বলেন, “বিশ্বের বৃহত্তম স্পোর্টস কমপ্লেক্স সরদার বল্লভভাই প্যাটেল স্পোর্টস কমপ্লেক্সটিও মোতেরা স্টেডিয়ামের পাশেই ২৫১ কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মিত হবে। ক্রিকেটের পাশাপাশি বিশ্বের অন্যান্য বড় বড় খেলাও এই কমপ্লেক্সে অন্তর্ভুক্ত থাকবে। এটিতে ফুটবল, হকি সহ সমস্ত ইন্ডোর গেমও অন্তর্ভুক্ত থাকবে। এই কমপ্লেক্সটির ধারণক্ষমতা ১০ থেকে ১২ হাজার হবে। একটি সুইমিং পুলও থাকবে। এতে শিক্ষার্থীদের থাকার ব্যবস্থা থাকবে।” যুবসমাজ যে এতে উৎসাহিত হবে, তা বলাই বাহুল্য।

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Facebook Twitter Email Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *