ভবানীপুরে ত্রাণ বিলি করতে গিয়ে গালে সপাটে চড় খেয়েছেন, অভিযোগ রুদ্রনীলের

Mysepik Webdesk: ভবানীপুরে ত্রাণ বিলি করতে গিয়েছিলেন, কিন্তু ত্রাণ বিলি করার একেবারে শেষ পর্যায়ে কলকাতার ৭১ নম্বর ওয়ার্ডের তৃণমূল নেতা বাবলু সিং তাঁর গালে সপাটে চড় মারেন। শুক্রবার এমনটাই অভিযোগ করেছেন বিজেপি নেতা রুদ্রনীল ঘোষ। বাবলু সিং-এর বিরুদ্ধে ভবানীপুর থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন তিনি। যদিও রুদ্রনীলের সব অভিযোগ অস্বীকার করেছেন বাবলু সিং।

আরও পড়ুন: ৫ বিচারপতির বৃহত্তর বেঞ্চে জামিন তৃণমূলের ৪ হেভিওয়েট নেতা-মন্ত্রীর

রুদ্রনীল জানান, শুক্রবার দুপুরে ঠিক দেড়টা নাগাদ তিনি যখন ভবানীপুরে ত্রাণ বিলি করছিলেন, ঠিক তার শেষ পর্যায়ে সেখানে উপস্থিত হন তৃণমূল নেতা বাবলু সিং ও তার দলবল। এসেই তাঁকে সপাটে চড় মারা হয় এবং বলা হয়, “তুই ভবানীপুর কেন্দ্রের BJP প্রার্থী ছিলি না! এখানে নাটক করতে এসেছিস? ত্রাণ দেওয়া যাবে না, ভবানীপুরে কেউ ঢুকবে না। এখান থেকে যা।” রুদ্রনীলের আরও অভিযোগ, ওই সময় সেখানে এক পুলিশকর্মী দাঁড়িয়েছিলেন। গোটা ঘটনাটা তাঁর সামনে ঘটলেও তিনি কোনও পদক্ষেপ নেননি, উল্টে রুদ্রনীলকে সেখান থেকে চলে যাওয়ার পরামর্শ দেন।

আরও পড়ুন: ইয়াসে ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য ‘দুয়ারে ত্রাণ’ প্রকল্পের ঘোষণা মমতার

এই প্রসঙ্গে বাবলু সিং জানান, “রুদ্রনীলবাবু যদি প্রমাণ করতে পারেন আমি ওনার গায়ে স্পর্শ করেছি তাহলে আমার যা শাস্তি দেবেন আমি মাথা পেতে নেব। ভবানীপুরে জল জমেনি, কোনও ক্ষয়ক্ষতিও হয়নি। সেই কারণে আমি শুধু জানতে চেয়েছিলাম, উনি কেন ত্রাণ বিলি করছেন। সেই প্রশ্ন করতেই উনি আমাকে উদ্দেশ্য করে বলতে শুরু করেন ‘তুমি কে, এখান থেকে ভাগো’। ওনার কাছে ত্রাণ বিতরণের অনুমতি আছে কিনা সেই প্রশ্ন করায় উনি তেড়ে এলেন।”

Facebook Twitter Email Whatsapp

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *