কাতারে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করেছে সৌদি আরব, উপসাগরীয় দেশগুলি বড় চুক্তির ঘোষণা করতে পারে

সৌদি আরব ও কাতারের মধ্যে চলমান বিরোধ এখন শেষের পথে। কর্তৃপক্ষের প্রাপ্ত তথ্যানুযায়ী, সৌদি আরব কাতারের আকাশসীমা এবং স্থলসীমা খোলার বিষয়ে সম্মত হয়েছে। উভয় দেশ এক বছরের পুরনো কূটনৈতিক সংকট শেষ করতে অগ্রসর হয়েছে। মঙ্গলবার সৌদি আরবে উপসাগরীয় দেশগুলির নেতাদের বৈঠকের আগে এই ঘোষণা করা হয়েছিল।

আরও পড়ুন: ইংল্যান্ডে এবার আরও কঠোর লকডাউন

সৌদি আরব, সংযুক্ত আরব আমিরাত, বাহরাইন ও মিশর ২০১৭ সালের জুনে কাতারের সঙ্গে কূটনৈতিক, ব্যবসা ও ভ্রমণ সম্পর্ক নিষিদ্ধ করেছিল। কাতার সন্ত্রাসবাদকে সমর্থন করে, এমনই অভিযোগ করেছিল এই দেশগুলি। যদিও কাতার এই অভিযোগকে তাদের সার্বভৌমত্বের উপর হামলা বলে দাবি করেছিল। উল্লেখ্য যে, সৌদি আরব থেকে দুগ্ধজাত পণ্য এবং প্রতিদিনের পণ্য সরবরাহ করত কাতার । হজযাত্রার পরে কিছু সময়ের জন্য সীমানা খোলা হয়েছিল।

আরও পড়ুন: ফের খবরের শিরোনামে বারমুডা ট্রায়াঙ্গল, এবার নিখোঁজ আস্ত এক যাত্রীবাহী জাহাজ

কুয়েত তখন থেকেই সংকট সমাধানের জন্য মধ্যস্থতার চেষ্টা করে চলেছে। সম্মেলনের আগে সোমবার কুয়েতের বিদেশমন্ত্রী আহমাদ নাসের আল-সাবাহ বলেছেন― ‘‘ভূমি, আকাশ ও সমুদ্র সীমান্ত খুলে দেওয়ার জন্য কাতারের সঙ্গে একটি চুক্তিতে পৌঁছেছে সৌদি আরব।” কুয়েতের এমন ঘোষণার পরে সংযুক্ত আরব আমিরাতের বিদেশমন্ত্রী আনোয়ার গারগাশ টুইট করেছেন যে, ‘‘আমরা উপসাগরীয় দেশগুলির ঐক্য বজায় রাখতে আগ্রহী। এই ক্ষেত্রে আরও অনেক কিছু করা বাকি রয়েছে। তবে আমরা সঠিক পথে রয়েছি।” উল্লেখ্য যে, দীর্ঘ সাড়ে তিন বছর পর কাতারের জন্য স্থল সীমান্ত খুলে দিয়েছে সৌদি। মনে করা হচ্ছে যে, উপসাগরীয় দেশগুলি বড় চুক্তির ঘোষণা করতে পারে।

Facebook Twitter Email Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *