ত্রিপুরায় বিজেপি শিবিরের অন্তর্দ্বন্দ্ব প্রকাশ্যে, বিপ্লব দেবের গুরুত্বপূর্ণ বৈঠকে গরহাজির একাধিক নেতা

Mysepik Webdesk: যত দিন যাচ্ছে ত্রিপুরায় বিজেপি শিবিরে ভাঙ্গন ততই প্রকাশ্যে আসছে। মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেবের ডাকা গুরুত্বপূর্ণ বৈঠকে এবার অনুপস্থিত থাকলেন তাঁরই দলের একাধিক নেতা-বিধায়ক। জানা গিয়েছে, শুক্রবার বিধানসভায় বিকেল ৪.৫০ মিনিট নাগাদ একটি বৈঠক ডেকেছিলেন ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেব। সেই বৈঠকে গরহাজির ছিলেন বহু বিধায়ক। একাধিক নিজস্ব কারণ দেখিয়ে কার্যত তাঁরা সেই বৈঠক এড়িয়ে গেলেন বলেই মনে করা হচ্ছে। তাঁদের মধ্যে অনেকেই আবার তৃণমূল নেতা মুকুল রায়ের ঘনিষ্ট।

আরও পড়ুন: কিছুতেই ভ্যাকসিন নিতে দেবেন না স্ত্রীকে, আধার কার্ড নিয়ে গাছে উঠলেন স্বামী

জানা গিয়েছে, প্রায় ঘন্টা দুই ধরে চলতে থাকা ওই বৈঠকে মূলত ত্রিপুরায় একাধিক উন্নয়নমূলক কাজকর্ম নিয়ে আলোচনা হয়। পাশাপাশি সোশ্যাল মিডিয়ায় বিজেপির সাফল্যের যাবতীয় সাফল্যের খতিয়ান তুলে ধরার জন্য জোর দেওয়া হয়। এই বিষয়ে গুরুদায়িত্ব দেওয়া হয়েছে মিমি মজুমদার, সুশান্ত চৌধুরীদের। কিন্তু ওই বৈঠকে ত্রিপুরার ৩৬ জন বিধায়কের মধ্যে অনুপস্থিত ছিলেন অন্তত ১০ জন বিধায়ক। এঁদের মধ্যে অনেকেই আবার মুকুল ঘনিষ্ট।

আরও পড়ুন: বাংলায় একুশে নির্বাচনের ‘খেলা হবে’ স্লোগান এবার যোগীরাজ্যেও

অনুপস্থিতি বিধায়কদের মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলেন সুদীপ রায় বর্মন, রামপ্রসাদ পাল, পরিমল দেববর্মন, আশিস দাস, আশিস কুমার সাহা প্রমুখরা। শুধু তাই নয়, ত্রিপুরার উপমুখ্যমন্ত্রী যীষ্ণু দেববর্মাও অনুপস্থিত ছিলেন ওই বৈঠকে। যেহেতু ওই বৈঠক পূর্বনির্ধারিত ছিল, সেহেতু আগে থেকে যে ওই বৈঠকে এড়িয়ে যেতে চেয়েছেন তাঁরা, সেই বিষয়টি এবার আরও স্পষ্ট হল।

Facebook Twitter Email Whatsapp

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *