হাই স্পিড ট্রেন চালাতে বাদ দেওয়া হচ্ছে স্লিপার কোচ

Indian Rail

Mysepik Webdesk: দেশজুড়ে হাইস্পিড ট্রেন পরিষেবা দিতে বেশ কিছু রদবদল করতে চলেছে ভারতীয় রেল। আর তার জেরেই ট্রেন থেকে বাদ দেওয়া হচ্ছে স্লিপার কোচ। পরিবর্তে গোটা ট্রেনেই থাকছে বিশেষ বাতানুকূল কামরা।

আরও পড়ুন: কাশ্মীরের নদীতে ভেসে আসা টিউবে উদ্ধার একে ৪৭

রেল মন্ত্রকের এক আধিকারিক জানিয়েছেন, প্রযুক্তিগত কারণেই ১৩০ কিমির বেশি গতিতে চলা ট্রেনে বাতানুকূল কামরা রাখা জরুরি। স্বর্ণ চতুর্ভূজ ও কৌণিক প্রকল্পে রেল লাইনের মানোন্নয়ন করে ঘণ্টায় ১৩০ থেকে ১৬০ কিমি গতিতে ট্রেন চালানোর উপযোগী পরিকাঠামো গড়ে তোলার জন্য কাজ শুরু করেছে ভারতীয় রেল। ইতিমধ্যেই বেশ কিছু করিডোরকে ঘণ্টায় ১৩০ কিমির বেশি গতিতে ট্রেন চালানোর মতো উপযোগী করে তোলা হয়েছে। আর ভাড়া হবে হামসফর ট্রেনের পরিকাঠামো অনুসরণ করে।

তবে রেল মন্ত্রক সূত্রে খবর, শুধুমাত্র ঘণ্টায় ১৩০ কিমি বেগে চলা ট্রেনেই নন-এসি কোচের পরিবর্তে বিশেষ বাতানুকূল কামরা ব্যবহার করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। সাধারণ মেল ও এক্সপ্রেস ট্রেন, যেগুলো ঘণ্টায় ১১০ কিমি গতিতে চলে তাতে স্লিপার কোচ থাকছে।

আরও পড়ুন: জমির মালিকানা নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর নতুন সংযোজন, প্রপার্টি কার্ড

ইতিমধ্যে কাপুরথালায় রেল কোচ ফ্যাক্টরিতে বিশেষ এই কামরার প্রতিরূপ তৈরি করা হচ্ছে, যা আগামী কয়েক সপ্তাহের মধ্যে সম্পূর্ণ হয়ে যাবে। নতুন এই বাতানুকূল কামরায় থাকছে ৮৩টি বার্থ। বিশেষ কামরায় থাকছে না সাইড আপার ও সাইড লোয়ার বার্থের মধ্যে মিডল বার্থ। এছাড়াও বৈদ্যুতিক সংযোগের সরঞ্জাম এবং যাত্রীদের কম্বল, চাদর ও বালিশ রাখার জন্য নির্দিষ্ট কাবার্ডও সরিয়ে ফেলা হচ্ছে এই বিশেষ বাতানুকূল কামরা থেকে। করোনাভাইরাস সংক্রমণের জেরে যাত্রীদের বিছানার সামগ্রী সরবরাহ বন্ধ রেখেছে ভারতীয় রেল।

কমপক্ষে ২০০টি কামরা আগামী বছরের মধ্যে তৈরী করতে চলেছে রেল। কামরাগুলো নিয়ে দৌঁড়ানোর আগে প্রয়োজনীয় পরীক্ষা ও মূল্যায়ণ করা হবে বলেও জানিয়েছে রেল মন্ত্রক।

Similar Posts:

Facebook Twitter Email Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *