ইংল্যান্ডকে হারিয়ে লাগাতার ষষ্ঠ সিরিজ জয় টিম ইন্ডিয়ার

Mysepik Webdesk: শনিবার (২০ মার্চ) আহমদাবাদের নরেন্দ্র মোদি স্টেডিয়ামে ভারত ও ইংল্যান্ডের মধ্যে পাঁচটি টি-২০ ম্যাচের পঞ্চম ও শেষ ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হয়ে গেল। টিম ইন্ডিয়া এই ম্যাচটি ৩৬ রানে জিতেছে। এরসঙ্গে ভারত সিরিজটি ৩-২ ব্যবধানে জিতে নেয়। অধিনায়ক বিরাট কোহলি ছাড়াও রোহিত শর্মা, সূর্যকুমার যাদব, হার্দিক পান্ডিয়া, ভুবনেশ্বর কুমার এবং শার্দূল ঠাকুর ম্যাচে টিম ইন্ডিয়ার হয়ে দুর্দান্ত পারফরম্যান্স মেলে ধরেন।

টস জিতে প্রথমে বোলিংয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন ইংল্যান্ড অধিনায়ক ইয়ান মর্গ্যান। ভারতীয় দল ইংল্যান্ডকে ২২৫ রানের লক্ষ্য দিয়েছিল। জবাবে ইংলিশ দল ২০ ওভারে ৮ উইকেটে ১৮৮-তে থেমে যায়। ভারতীয় দল টানা ষষ্ঠ সিরিজ জিততে সক্ষম হয়েছে। অন্যদিকে, ইংল্যান্ড ৯ বছর ধরে ভারতে কোনও দ্বিপাক্ষিক সিরিজ জেতেনি। এর আগে ২০১১ সালে তিনি টিম ইন্ডিয়াকে পরাজিত করেছিলেন। যদিও সেটি ছিল মাত্র একটি ম্যাচের সিরিজ।

https://twitter.com/ICC/status/1373331410593878018?s=20

ভারতের হয়ে অধিনায়ক বিরাট কোহলি এবং রোহিত শর্মা ফিফটি করেছিলেন। সিরিজে প্রথমবার ওপেন করতে নামা বিরাট ৫২ বলে ৮০ রানে অপরাজিত থাকেন। রোহিত ৩৪ বলে ৬৪ রান করেছিলেন। হার্দিক পান্ডিয়া ১৭ বলে ৩৯ এবং সূর্যকুমার যাদব ১৭ বলে ৩২ রান করেছিলেন। একইসঙ্গে ইংল্যান্ডের ইনিংসের কথা বললে বিশ্বের ১ নম্বর টি-২০ ব্যাটসম্যান ডেভিড মালান ৬৮ এবং জোস বাটলার ৫২ রান করেছিলেন। ভারতের হয়ে ভুবনেশ্বর কুমার ৪ ওভারে ১৫ রানে ২ উইকেট নিয়েছিলেন। শার্দূল ঠাকুর ৪ ওভারে ৪৫ রানে ৩ উইকেট নিয়েছিলেন। তিনি একটি ওভারে বেয়ারস্টো ও মালানকে আউট করে ম্যাচের মোড় ভারতের দিকে দেন। ম্যাচের সেরা নির্বাচিত হয়েছেন ভুবি।

ম্যাচে ডেভিড মালান পাকিস্তানের অধিনায়ক বাবর আজমের রেকর্ড ভেঙে দেন। তিনি টি-২০ আন্তর্জাতিক ম্যাচে সবচেয়ে দ্রুততম হাজার রান করেছেন। ম্যাচে ৬৫ রান করার সঙ্গে সঙ্গে তিনি এই কীর্তি অর্জন করেছিলেন। মালান ২৪ ইনিংসে ১০০০ রান পূর্ণ করেছেন। বাবর এক হাজার রান পূরণ করতে নিয়েছিলেন ২৬ ইনিংস।

Facebook Twitter Email Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *