আফগান মাটি ব্যবহার করে সন্ত্রাস চালানো যাবে না, রাষ্ট্রসংঘে পাকিস্তানকে কড়া বার্তা দিলেন প্রধানমন্ত্রী

Mysepik Webdesk: তালিবান সম্পর্কে ভারতের অবস্থান এখনও স্পষ্ট নয়। ফলে, রাষ্ট্রসংঘে এদিন ভাষণে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ঠিক কী বলবে, তার দিকে নজর ছিল গোটা দেশের মানুষের। এই পরিস্থিতিতে রাষ্ট্রসংঘের সম্মেলনের মঞ্চ থেকে প্রধানমন্ত্রী স্পষ্ট বুঝিয়ে দিলেন, সন্ত্রাসের সঙ্গে ভারত কোনও ভাবেই আপোস করবে না। এদিন নাম না করে পাকিস্তানের উদ্দেশ্যে প্রধানমন্ত্রী বলেন, “আফগানিস্তানের মাটি যেন সন্ত্রাসবাদি কার্যকলাপের জন্য ব্যবহার না হয়। অন্য কেউ যেন সেই দেশের পরিস্থিতির সুযোগ না নেয়।” তাঁর কথায়, “যে দেশ সন্ত্রাসবাদকে রাজনৈতিক অস্ত্র হিসেবে ব্যবহার করছে, তাদের বোঝা উচিত যে এটা তাদেরও ক্ষতি হবে।”

আরও পড়ুন: বামেদের বড়োসড়ো ধাক্কা দিয়ে কংগ্রেসে যোগ দিচ্ছেন কানহাইয়া! জল্পনা তুঙ্গে

এদিন নরেন্দ্র মোদি তাঁর ভাষণে ভারতকে ‘গণতন্ত্রের প্রাণবন্ত উদাহরণ’ আখ্যা দিয়ে বলেন, “ভারত হল গণতন্ত্রের মা। অত্যন্ত ভাইব্র্যান্ট এই গণতন্ত্র। গণতন্ত্র ফলাফল দিতে পারে, ফলাফল দিয়েছে। একজন চাওয়ালার ছেলে তাই চতুর্থ বারের জন্য ইউএনজিএ-তে বক্তব্য রাখতে পারে।” তিনি বলেন, “সকলের উন্নয়নই প্রধান লক্ষ্য। ভারতে উন্নয়ন হলে সেই উন্নয়ন সারা বিশ্বে হবে। ভারতে সংস্কার হলে বিশ্ব বদলাবে।”

আরও পড়ুন: মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে রোম সফরে অনুমতি দিল না কেন্দ্র, চিঠি পৌঁছাল নবান্নে

এদিন নরেন্দ্র মোদি তাঁর ভাষণে বলেন, “সমুদ্রের সম্পদ যেন ব্যবহার করা হয়, কিন্তু অপব্যবহার যেন না হয়। সমুদ্রের মাধ্যমে আন্তর্জাতিক বাণিজ্য হয়, সেখানে সাম্রাজ্যবাদী কোনও প্রচেষ্টা চলবে না। নিয়মের ভিত্তিতে যাতে বিশ্ব চলে, সেটা নিশ্চিত করতে হবে।” তাঁর কথায়, “রাষ্ট্রসংঘকে প্রাসঙ্গিক করে রাখতে হলে আগে নিজেদের সংস্কার করতে হবে। পরিবেশ সংকট থেকে কোভিড, সন্ত্রাসবাদ থেকে আফগানিস্তান সমস্যা নিয়ে অনেক প্রশ্ন উঠেছে যার উত্তর নেই। রাষ্ট্রসংঘকে দেখতে হবে যাতে সারা বিশ্বে আইন কানুন মানা হয়।

Facebook Twitter Email Whatsapp

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *