অনির্দিষ্টকালের জন্য পিছিয়ে গেল কলকাতা বইমেলা

Mysepik Webdesk: বইপ্রেমীদের জন্য খারাপ খবর। কলকাতা বইমেলা পিছিয়ে গেল অনির্দিষ্টকালের জন্য। বইমেলা স্থগিত রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে আয়োজক সংস্থা পাবলিশার্স অ্যান্ড বুকসেলার্স গিল্ড। রবিবার সংস্থার তরফ থেকে ত্রিদিব চট্টোপাধ্যায় জানিয়েছেন, করোনা সংক্রমণের ভয়ে আগামী কিছুদিন কলকাতা বইমেলা পিছিয়ে দেওয়া হচ্ছে। পরবর্তী সময়ে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে ফের বইমেলার দিনক্ষণ ঘোষণা করা হবে।

আরও পড়ুন: বাবুল সুপ্রিয় যোগ দিচ্ছেন তৃণমূলে, খবর ছড়াতেই আসরে খোদ বাবুল

File:Kolkata Book Fair 2010 4361.JPG - Wikimedia Commons

আন্তর্জাতিক কলকাতার ঐতিহ্যশালী বইমেলা পড়তে চলেছে ৪৫তম বর্ষে। পূর্বনির্ধারিত সূচি অনুযায়ী, বইমেলার উদ্বোধনী অনুষ্ঠান হওয়ার কথা ছিল ২৭ জানুয়ারি। চলার কথা ছিল আগামী ৭ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত। শেখ মুজিবর রহমানের জন্মশতবর্ষ এবং বাংলাদেশ রাষ্ট্রের স্বাধীনতার পঞ্চাশ বছর উপলক্ষে এবারের বইমেলার থিম কান্ট্রি হওয়ার কথা ছিল বাংলাদেশ। কিন্তু করোনার কারণে সেই আয়োজন বাতিল ঘোষণা করা হয়। বইমেলা কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, আপাতত তারা চাইছেন না বইমেলার আয়োজন করতে। করোনা পরিস্থিতি কেটে যাওয়ার পরেই বইমেলা আয়োজন হোক, এমনটাই ইচ্ছা কর্তৃপক্ষের। সেই কারণে ভ্যাকসিন এলে করোনার প্রকোপ কিছুটা কমলে বইমেলা আয়োজন করা হতে পারে।

আরও পড়ুন: প্রভাবশালীর রাজনৈতিক নেতার চাপে পড়েই বাধ্য হই কলকাতা ছাড়তে, চিঠি দিয়ে জানালেন সুদীপ্ত সেন

ত্রিদিব চট্টোপাধ্যায় সংবাদমাধ্যমকে জানান, “কোভিড-১৯’এর প্রকোপে অতিমারির কারণে গত মার্চ ২০২০ থেকে এখনও পর্যন্ত আন্তর্জাতিক উড়ানের ওপর বিধিনিষেধ জারি রয়েছে। এখনও পর্যন্ত রাজ্যের স্কুল-কলেজগুলি বন্ধ রাখার সিদ্ধান্তও জারি রয়েছে। শুধু এই নয়, বিশ্বের একাধিক দেশে দ্বিতীয় দফার কঠোর লকডাউন ঘোষণা হয়েছে। আমরা খবর পেয়েছি, লন্ডন, আমেরিকা, প্যারিসে যে সব আন্তর্জাতিক বইমেলাগুলি অনুষ্ঠিত হয়ে থাকে, সেগুলিরও তারিখ থেকে পিছিয়ে দেওয়া হয়েছে।” তিনি আরও বলেন, “লক্ষ লক্ষ মানুষের যেখানে জীবন-মরণের প্রশ্ন জড়িয়ে রয়েছে, সেখানে এত বড় উৎসব করা উচিত হবে না। মেলা প্রাঙ্গণে এককালীন ১০০ জন করে প্রবেশ করানো কিংবা ৭৫০ স্টলের মধ্যে কোনও স্টলের ভেতরে লোকজন ঢুকতে পারবে না, সেলফি নিতে পারবে না, এসব বইমেলার ক্ষেত্রে করা কখনোই সম্ভব নয়।”

Facebook Twitter Email Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *