প্রয়াত দেশের প্রথম মহিলা হৃদরোগ বিশেষজ্ঞ, আক্রান্ত হয়েছিলেন করোনায়

Mysepik Webdesk: ভারতের প্রথম মহিলা হৃদরোগ বিশেষজ্ঞ শিবরামকৃষ্ণ আইয়ার পদ্মাবতীর মৃত্যু হয়েছে। তাঁর করোনা আক্রান্ত হওয়ার খবর পাওয়া গিয়েছিল। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ১০৩ বছর। করোনা আক্রান্ত হওয়ার পর তিনি গত ১১ দিন ধরে দিল্লির ন্যাশনাল হার্ট ইনস্টিটিউটে চিকিৎসাধীন ছিলেন। তাঁর দুটি ফুসফুস প্রবলভাবে আক্রান্ত হয়েছিল। এই হাসপাতালটি ১৯৮১ সালে তিনি নিজের হাতেই প্রতিষ্ঠা করেছিলেন। পশ্চিম দিল্লির পাঞ্জাবি বাগ শ্মশানে তাঁর শেষকৃত্য সম্পন্ন হয়।

আরও পড়ুন: প্রণব মুখোপাধ্যায়ের শারীরিক অবস্থার আরও অবনতি

১৯৬২ সালে অল ইন্ডিয়া হার্ট ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠা করেন পদ্মাবতী। ১৯৬৭ সালে মৌলানা আজাদ মেডিক্যাল কলেজের ডিরেক্টর- প্রিন্সিপালের পদে তিনি যোগদান করেছিলেন। পাশাপাশি তিনি আরউইন এবং জি বি পন্থ হাসপাতালের সঙ্গেও যুক্ত ছিলেন। হৃদরোগের চিকিৎসার জন্য ভারতের প্রথম ডিএম কোর্স চালু করেন তিনি। এছাড়াও দেশের প্রথম করোনারি কেয়ার ইউনিট এবং করোনারি কেয়ার ভ্যানও চালু করেন তিনি। তিনি ২০১৫ সাল পর্যন্ত ন্যাশনাল হার্ট ইনস্টিটিউটে সপ্তাহে পাঁচদিন প্রতিদিন ১২ ঘণ্টা করে কাজ করতেন। ১৯৬৭ সালে পদ্ম ভূষণ পুরস্কার পান এস আই পদ্মাবতী। ১৯৯২ সালে পদ্ম বিভূষণ পুরস্কারে সম্মানিত করা হয় কিংবদন্তি এই চিকিৎসকে।

Facebook Twitter Email Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *