বাইকে শিশুদের চড়ানোর ক্ষেত্রে আসছে কেন্দ্রের নতুন আইন, না মানলেই বিপদ

Mysepik Webdesk: রাস্তায় যানজট এড়াতে কিংবা জ্বালানি বাঁচাতে গাড়ির পরিবর্তে রাস্তায় আজকাল অনেকেই বাইক ব্যবহার করছেন। অনেক সময়ই দেখা যায়, সময় বাঁচাতে শিশুদের নিয়েও অনেক পরিবারই বাইকে চেপে বসেন। ফলে, রাস্তাঘাটে বাইকের সংখ্যা যত বাড়ছে, ততই বেড়ে চলেছে নিয়ম লঙ্ঘনের ঘটনা। বাইকে আরোহীদের হেলমেট ব্যবহারের ক্ষেত্রে সরকারের কড়া নিয়ম থাকলেও এতদিন পর্যন্ত শিশুদের ক্ষেত্রে সেরকম কোনও নিয়ম ছিল না। তবে, এবার শিশু আরোহীদের নিরাপত্তার ক্ষেত্রে আরও কড়া হতে চলেছে কেন্দ্রীয় সরকার।

আরও পড়ুন: আজই গোয়ায় পা রাখবেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

অনেক ক্ষেত্রেই রাস্তায় বিনা হেলমেটে বাইক আরোহীদের দেখা যায়। অনেক সময় আবার বাইক আরোহীরা হেলমেট পরে থাকলেও শিশুদের হেলমেট পরে থাকতে দেখা যায় না। কিন্তু, এবার কেন্দ্রীয় সরকার শিশুদের হেলমেট ব্যবহারের ক্ষেত্রে আরও কড়া হতে চলেছে। ফলে আগামী দিনে দু-চাকার গাড়িতে বাচ্চাদের নিয়ে যাওয়ার ক্ষেত্রে জারি করা হতে চলেছে একগুচ্ছ নির্দেশিকা। গত মঙ্গলবারই কেন্দ্রীয় সরকার সেই আইনের খসড়া প্রকাশ করেছেন। ১৯৮৯ সালের কেন্দ্রীয় মোটর ভেহিকলস আইনের সংশোধন আনতে চেয়ে সড়ক পরিবহণ ও হাইওয়ে মন্ত্রক ২০২২ সাল থেকে নতুন বিধি কার্যকর করতে চাইছে। সেই আইন পাশ হয়ে গেলেই আগামী বছর থেকে রাজ্যগুলিকে মেনে চলতে হবে সেই আইন।

আরও পড়ুন: গোটা কাশ্মীর নিয়েই ছাড়ব ‘ইনফেন্ট্রি ডে’-তে হুঙ্কার দিলেন এয়ার মার্শাল অমিত দেবের

ঠিক কী কী মেনে চলতে হবে বাইক আরোহীদের ক্ষেত্রে?

১) ৮ বছর বয়স পর্যন্ত শিশুদের ক্ষেত্রে বাইক চড়ার সময় হেলমেট বাধ্যতামূলক হতে চলেছে।
২) শিশুদের হেলমেট আইএসআই মার্কযুক্ত হতে হবে। হেলমেটে আইএসআই মার্ক না থাকলে ট্রাফিক আইনের আওতায় শিশুটির পরিবারের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে পারে পুলিশ।
৩) বাইক আরোহীর সঙ্গে কোনও শিশু থাকলে বাইকের গতিবেগ সর্বোচ্চ ৪০ কিলোমিটার প্রতি ঘন্টায় থাকতে হবে। এর বেশি গতিবেগে বাইক চালানো যাবে না।
৪) বাইকের চালকের সঙ্গে শিশু আরোহীকের বেঁধে রাখার জন্য ‘সেফটি হারনেস’ বাধ্যতামূলক করা হচ্ছে।
৫) শিশু সঙ্গে থাকা সত্ত্বেও কোনও চালক যদি এই নিয়ম মেনে না চলেন, তাহলে ওই আইনভঙ্গকারীর এক হাজার টাকা জরিমানা এবং তিন মাস পর্যন্ত ড্রাইভিং লাইসেন্স বাতিল করা হবে।

Facebook Twitter Email Whatsapp

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *