মদ-মাংস বিক্রির ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি হল মথুরা-বৃন্দাবনে

Mysepik Webdesk: ৩০ অগাস্ট জন্মাষ্টমীর অনুষ্ঠানে মথুরা-বৃন্দাবনে গিয়ে ওই পুরসভার ২২টি ওয়ার্ডকে আগেই ‘পবিত্র তীর্থস্থান’ তকমা দিয়েছিলেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ। তখনই তিনি জানিয়েছিলেন, ওই এলাকাগুলি যেহেতু ‘পবিত্র তীর্থস্থান’ বলে ঘোষণা করা হয়েছে, সেহেতু এলাকায় মদ-মাংস বিক্রির ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা উচিত। এরপরেই শনিবার সরকারের তরফ থেকে এই সংক্রান্ত একটি নির্দেশিকা জারি করে তিনি জানান, “এলাকার মানুষ চান ওই এলাকা যেহেতু ‘পবিত্র তীর্থস্থান’ বলে ঘোষিত হয়েছে, সেহেতু এলাকায় কোনও মদ-মাংসের দোকান থাকা উচিত নয়।” সেই কারণেই এলাকাবাসীদের দাবি অনুযায়ী আমি এই নির্দেশ দিয়েছি।”

আরও পড়ুন: আচমকা পদত্যাগ করলেন গুজরাতের মুখ্যমন্ত্রী বিজয় রুপানি

উত্তরপ্রদেশ সরকারের নতুন এই ঘোষণার ফলে মথুরা-বৃন্দাবন পুরসভার আওতায় ওই ২২টি ওয়ার্ডের মধ্যে ঘাটি বহলরাই, গোবিন্দ নগর, মান্ডি রামদাস, চৌবিয়াপাদা, দ্বারিকাপুরী, নবনীতনগর, বাখান্দি, ভরতপুর গেট, অর্জুনপুরা, হনুমান টিলা, জগন্নাথ পুরী, গাউঘাট, মনোহরপুরা, বৈরাজপুরা, রাধানগর, বদরীনগর, মহাবিদ্যাচলন, কৃষ্ণনগর, কৃষ্ণনগর, কৃষ্ণনগর নগর এবং জয় সিং পুরা এলাকায় মদ-মাংসের দোকানের ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়। সরকারি বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, মথুরা এবং বৃন্দাবন শ্রীকৃষ্ণের জন্মস্থান। প্রত্যেকবছর সেখানে বহু তীর্থযাত্রীরা আসেন। মথুরা এবং বৃন্দাবনের ঐতিহাসিক এবং পর্যটন শিল্পেরও বিশেষ গুরুত্ব রয়েছে। সব দিক বিবেচনা করেই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

Facebook Twitter Email Whatsapp

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *