পয়লা মার্চ থেকে শুরু ভ্যাকসিনেশনের ২য় পর্ব, টিকাকরণ চলবে বেসরকারি হাসপাতালেও

vaccine tryal

Mysepik Webdesk: দেশে করোনার টিকা দেওয়ার দ্বিতীয় পর্ব শুরু হবে ১ মার্চ থেকে। ১০ হাজার সরকারি কেন্দ্রে এবং ২০ হাজার বেসরকারি হাসপাতালে টিকা দেওয়া হবে। সেখানে ৪০ বছরের উপরে অসুস্থ ব্যক্তিদের এবং ৬০ বছরের বেশি বয়সের সমস্ত মানুষকে টিকা দেওয়া হবে। এই বয়সের মানুষ যদি সরকারি কেন্দ্রে যান, তাঁদের জন্য এই ভ্যাকসিন বিনামূল্যে দেওয়া হবে। তবে বেসরকারি হাসপাতালে তাঁদের ভ্যাকসিন গ্রহণ করতে অর্থ দিতে হবে।

আরও পড়ুন: বাড়ছে করোনার উদ্বেগ, এই পাঁচ রাজ্য থেকে দিল্লি প্রবেশে লাগবে কোভিড নেগেটিভ রিপোর্ট

News Feature: Avoiding pitfalls in the pursuit of a COVID-19 vaccine | PNAS

কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রকাশ জাভড়েকর বলেন, “এই ভ্যাকসিনগুলি সরকারি কেন্দ্রগুলিতে বিনামূল্যে দেওয়া হবে। তবে যাঁরা বেসরকারি হাসপাতালে টিকা দিতে চান, তাঁদের একটি চার্জ দিতে হবে। আগামী ৩-৪ দিনের মধ্যে বেসরকারি হাসপাতালে টিকা দেওয়ার জন্য কত ফি দিতে হবে, সে বিষয়ে স্বাস্থ্য মন্ত্রক সিদ্ধান্ত নেবে। স্বাস্থ্য মন্ত্রক এ ব্যাপারে নির্মাতা ও হাসপাতালের সঙ্গে কথা বলছে।”

আরও পড়ুন: এবার থেকে করোনার টিকা পেতে গেলে খসাতে হবে গাঁটের কড়ি

Covid-19 outbreak: the key to quicker vaccine development

বিশ্বের অনেক দেশ, বিশেষত চিন গতবছরের জুনে এবং রাশিয়া আগস্টে টিকা শুরু করেছিল। একইসঙ্গে আমেরিকা, ব্রিটেন সহ বেশিরভাগ দেশে ডিসেম্বরে শুরু হয়েছিল টিকাদান পর্ব। ভারতে ১৬ জানুয়ারি থেকে টিকাদান শুরু হয়েছিল। ২২ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত বিশ্বব্যাপী ২১ কোটি মানুষ টিকা দেওয়া হয়েছে। আমেরিকাতে সর্বাধিক ৬.৪১ কোটি মানুষ টিকা প্রদান করেছেন। এর পরে, চীনে ৪.০৫ কোটি, ইউরোপীয় ইউনিয়নে ২.৭ কোটি, যুক্তরাজ্যে ১.৮ কোটি এবং ভারতে ১.১৯ কোটি ভ্যাকসিন দেওয়া হয়েছে।

Facebook Twitter Email Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *