রাতে অভুক্তই ছিলেন দুই মন্ত্রী, হাসপাতালে সুব্রত ও মদন

Mysepik Webdesk: সোমবার জামিন নিয়ে লম্বা নাটকের পর নিজাম প্যালেস থেকে সরাসরি প্রেসিডেন্সি জেলে নিয়ে আসা হয় চার তৃণমূল নেতা মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম, সুব্রত মুখোপাধ্যায়, বিধায়ক মদন মিত্র এবং প্রাক্তন মেয়র শোভন চট্টোপাধ্যায়কে। এদিন ভোর রাতের দিকে শোভন চট্টোপাধ্যায় এবং মদন মিত্র অসুস্থ বোধ করায় তাঁদের এসএসকেএম হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। সেখানেই তাঁদেরকে ভর্তি করা হয়। অন্যদিকে প্রেসিডেন্সি জেলের উত্তম কুমার সেলে দু’টি আলাদা আলাদা লকআপে রাখা হয় ফিরহাদ হাকিম এবং সুব্রতকে মুখোপাধ্যায়কে।

আরও পড়ুন: জামিন স্থগিতাদেশ প্রত্যাহারের আর্জি নিয়ে আজ ফের হাইকোটের দ্বারস্থ চার নেতার আইনজীবী

সূত্রের খবর, লকআপে থাকাকালীন গতকাল রাতে কিছুই খাননি দুই মন্ত্রী। ঠিকমতো ঘুমোননি তাঁরা। যদিও সকালের দিকে ফিরহাদ হাকিম সামান্য কিছুক্ষন ঘুমোন। ভোরবেলা জেলের মধ্যে মর্নিং ওয়াক করেন তিনি। চা এবং টিফিনও করেন। ওষুধও খান। অন্যদিকে এসএসকেএম হাসপাতালের উডবার্ন ওয়ার্ডে সুব্রত মুখোপাধ্যায়ের ফের শারীরিক পরীক্ষা করা হয়। তাঁকে ওই ওয়ার্ডের ১০২ নম্বর কেবিনে ভর্তি করা হয়েছে। মদন মিত্রকে এসএসকেএম হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পর অক্সিজেন দিতে হয়।

আরও পড়ুন: প্রকাশিত হল কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের বিএ এবং বিএসসি অড সেমিস্টারের রেজাল্ট

এদিন সকালে জেলে গিয়ে ফিরহাদ হাকিমের কন্যা শাবা হাকিম তাঁর সঙ্গে দেখা করেন। সঙ্গে ছিলেন তাঁর আইনজীবীও। ফিরহাদ হাকিমের কন্যা সংবাদমাধ্যমকে জানান, শারীরিকভাবে সুস্থ থাকলেও তাঁর বাবা এই অতিমারীর সময়ে মানুষের জন্য কাজ করতে পারছেন না বলে মানসিকভাবে ভেঙে পড়েছেন।

Facebook Twitter Email Whatsapp

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *