বাংলার রাস্তায় হেঁটে পড়ুয়াকে ট্যাব-ল্যাপটপ দেওয়ার কথা ঘোষণা যোগী সরকারের

Mysepik Webdesk: আগেই করে দেখিয়েছেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এবার সেই রাস্তায় হাঁটলেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ। ২০২২ সালে উত্তরপ্রদেশে বিধানসভা নির্বাচন। সেই নির্বাচনকে পাখির চোখ করে বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজে ঝাঁপিয়ে পড়েছে বিজেপিশাসিত রাজ্যের শাসকদল। এবার রাজ্যের পড়ুয়াদের ট্যাব ও ল্যাপটপ দেওয়ার কথা ঘোষণা করলেন মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ।

আরও পড়ুন: মন কী বাত অনুষ্ঠানে দেশের ভ্যাকসিনেশনের কথা তুলে ধরলেন মোদি, স্যালুট করোনা যোদ্ধাদেরও

শনিবার বিকেলে সুলতানপুরের এক সরকারি মেডিক্যাল কলেজের প্রতিষ্ঠা দিবস উপলক্ষে ভাষণ রাখতে গিয়ে তিনি এমনটাই ঘোষণা করেন। তিনি জানান, “উত্তরপ্রদেশের সমস্ত তরুণ প্রজন্মকে আধুনিকতম প্রযুক্তির সঙ্গে যুক্ত করতে আমরা নভেম্বরের শেষ সপ্তাহ থেকে পড়ুয়াদের ট্যাবলেট ও ল্যাপটপ দেব।” প্রসঙ্গত, দিন দুয়েক আগে কংগ্রেস নেত্রী প্রিয়াঙ্কা গান্ধী টুইট করে জানিয়েছিলেন, ক্ষমতায় ফিরলে কংগ্রেস ইন্টার পাস করা মেয়েদের স্মার্টফোন এবং স্নাতক তরুণীদের ইলেকট্রনিক স্কুটি দেবে। মনে করা হচ্ছে, তাঁর ঘটনার পাল্টা ঘোষণা করলেন যোগী আদিত্যনাথ।

আরও পড়ুন: নিয়ন্ত্রণরেখার উত্তেজনার মধ্যে দুই দেশ ক্রিকেট খেললে জাতীয় স্বার্থ রক্ষা হতে পারে না: বাবা রামদেব

প্রসঙ্গত, চলতি বছরের জানুয়ারী মাসে বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় রাজ্যের দ্বাদশ শ্রেণির পড়ুয়াদের ট্যাব দেওয়ার ব্যবস্থা করেছিলেন। সেইমতো, পড়ুয়াদের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে ১০,০০০ টাকা পাঠানোর কাজ শুরু করেছিল পশ্চিমবঙ্গ সরকার। মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছিলেন, যেহেতু করোনাকালে স্কুল-কলেজ বন্ধ, সেহেতু বাড়ি থেকে অনলাইনে ক্লাস করাই এখন একমাত্র ভরসা। অনেক ক্ষেত্রেই দেখা গিয়েছে, টাকার অভাবে অনলাইন ক্লাসে জন্য ছাত্র-ছাত্রীরা স্মার্টফোন বা ট্যাব জোগাড় করতে পারছে না। তার ফলে অনেক পড়ুয়ারাই সমস্যার মুখে পড়ছে। সেই কারণেই দ্বাদশ শ্রেণীর ছাত্র-ছাত্রীদের সরকারের পক্ষ থেকে ট্যাব কেনার জন্য টাকা দেওয়ার ব্যবস্থা করেছিলেন তিনি।

Facebook Twitter Email Whatsapp

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *