ফিফার নির্বাসন-কোপে ইস্টবেঙ্গলে আইএসএল ভবিষ্যৎ অনিশ্চিত

Mysepik Webdesk: চলছে চুক্তি বিতর্ক। তার মধ্যেই নেমে এলো ফিফার দেওয়া নির্বাসনের শাস্তি। কলকাতার ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের এখন এমনই অবস্থা। লাল হলুদ ক্লাব ফুটবলারদের বকেয়া মেটায়নি। সেই কারণেই শাস্তির এমন খাঁড়া। এরফলে নতুন মরশুমে কোনও ফুটবলার সই করাতে পারবে না কলকাতার এই অভিজাত ক্লাব। সোমবার এমনই ট্রান্সফার ব্যান বা নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে বিশ্ব ফুটবলের নিয়ামক সংস্থা। কেবল ইস্টবেঙ্গল নয়, কেরালা ব্লাস্টার্সকেও নির্বাসিত করেছে ফিফা।

আরও পড়ুন: সুনীলের দাপটে পরাজিত বাংলাদেশ

চুক্তি অনুযায়ী অর্থ পাননি ইস্টবেঙ্গলের একাধিক ফুটবলার। সেই কারণে আগের লগ্নিকারী সংস্থাকে নোটিশও পাঠিয়েছিলেন তাঁরা। কিন্তু পূর্বের লগ্নিকারী ‘শ্রী’ জানিয়ে দেয় যে, ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের সঙ্গে তাদের বিচ্ছেদ হয়ে গিয়েছে। তাই ফুটবলারদের বকেয়া মেটানোর কোনও দায়িত্ব নেবে না তারা। এরপর সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশনের দ্বারস্থ হন ফুটবলাররা। এদিকে, খাইমে সান্তোস কোলাদো, স্পেনীয় ফিজিক্যাল ট্রেনার কার্লোস নোদার সহ অনেকেই ফিফায় অভিযোগ করেন। ফলত চাপে পড়ে ইস্টবেঙ্গল।

আরও পড়ুন: অনূর্ধ্ব-২১ ইউরো চ্যাম্পিয়ন অলিভার কানের দেশ

উল্লেখ্য যে, কয়েক মাস আগে ফিফার তরফে ইস্টবেঙ্গলকে একটি চিঠি দেওয়া হয়েছিল। চিঠিতে সব জানিয়ে দেওয়া হয়েছিল যে, দ্রুত ফুটবলারদের বকেয়া অর্থ মিটিয়ে দিতে হবে। তা না হলে শাস্তির মুখে পড়বে কলকাতার এই ক্লাব। যেমনটা আশঙ্কা করা গিয়েছিল, তা-ই হল। ইস্টবেঙ্গলে নিষেধাজ্ঞা জারি হল নতুন মরশুমে ফুটবলারদের সই করানোর ওপর। লগ্নিকারী সংস্কার এহেন আচরণই যে, ইস্টবেঙ্গলকে শাস্তির মুখে ফেলে দিয়েছে একথা মনে করছেন ওয়াকিবহাল মহল। ফিফার নির্বাসন-কোপে পড়ায় আইএসএলের আগামী মরশুমে কলকাতার লাল হলুদ ক্লাবের আদৌ খেলা হবে কিনা, সেই বিষয়ে প্রশ্নটা রয়েই গেল।

Facebook Twitter Email Whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *