Latest News

Popular Posts

বিরাটের সামনে থাকছে দক্ষিণ আফ্রিকায় নিজেকে ছাপিয়ে যাওয়ায় সুযোগ

বিরাটের সামনে থাকছে দক্ষিণ আফ্রিকায় নিজেকে ছাপিয়ে যাওয়ায় সুযোগ

Mysepik Webdesk: ২৬ ডিসেম্বর থেকে দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজর বৈতরণী পার করাতে মুখ্য ভূমিকা নিতে হবে অধিনায়ক বিরাট কোহলিকে। দক্ষিণ আফ্রিকায় টেস্ট ম্যাচ খেলার অভিজ্ঞতা রয়েছে বিরাটের। সেখানকার পরিস্থিতিও তিনি ভালো করেই জানেন। এই সফরে ইতিহাসের পুনরাবৃত্তি করার সুযোগ রয়েছে বিরাটের। রয়েছে তাঁর নিজের রেকর্ড ভাঙার সুযোগও। তিনি ২০১৮ সালের জানুয়ারিতে সেঞ্চুরিয়নে দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে ১৫৩ রানের একটি দুর্দান্ত ইনিংস খেলেছিলেন। এই সময় বিরাট ৩৭৯ মিনিট ক্রিজে ছিলেন। তবে দারুণ এই ইনিংসের পর ক্যাচ আউট হয়ে প্যাভিলিয়নে ফেরেন তিনি।

আরও পড়ুন: আমি কেন তোমার প্রিয় খেলোয়াড় নই? শচীনের প্রশ্নে একসময় ফ্যাসাদে পড়েছিলেন রায়না

২০১৮ সালে দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে ৩টি টেস্ট, ৬টি ওয়ানডে ও ৩টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচের সিরিজ খেলেছিল ভারত। এই সফরে টেস্ট সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচ ১৩ জানুয়ারি সেঞ্চুরিয়নে শুরু হয়েছিল। টসে জিতে প্রথমে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেয় দক্ষিণ আফ্রিকা। ৩৩৫ রানে প্রথম ইনিংসে অলআউট হয়ে যায় দক্ষিণ আফ্রিকা। জবাবে ভারতের শুরুটা খুব একটা ভালো হয়নি। মাত্র ১০ রানে আউট হয়ে যান ওপেনার লোকেশ রাহুল। এরপর ব্যাট করতে নামেন অধিনায়ক বিরাট কোহলি।

বিরাট ক্রিজে পৌঁছে কাগিসো রাবাদা, লুঙ্গি এনগিদি এবং মরনে মরকেলের পেস বোলিংয়ের মুখোমুখি হন। তবে বাঘা বাঘা প্রোটিয়ান বোলাররা বিরাটকে টলাতে পারেননি। এই ইনিংসে প্রায় ৩৭৯ মিনিট ব্যাটিং করে ২১৭ বলে ১৫ চারের সাহায্যে ১৫৩ রান করেন। এরপর মরকেলের বলে এবি ডি ভিলিয়ার্সের হাতে ক্যাচ দিয়ে আউট হয়ে প্যাভিলিয়নে ফেরেন। যদিও দ্বিতীয় ইনিংসে মাত্র ৫ রান করে আউট হয়ে যান বিরাট। তাঁর সাথে অন্য খেলোয়াড়রাও দ্বিতীয় ইনিংসে তেমন কিছু করতে পারেনি। ভারত ১৩৫ রানে ম্যাচ হেরে যায়।

আরও পড়ুন: রণবীরের কপিল হওয়ার গল্প

টিম ইন্ডিয়া ২০১৮ সালের জানুয়ারিতে দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজ ২-১ ব্যবধানে হেরে যেতে পারে, তবে এবার কোন টিম ইন্ডিয়ার কাছ থেকে আরও ভালো পারফরম্যান্স আশা করতে পারি। ২৬ ডিসেম্বর থেকে সেঞ্চুরিয়নে সিরিজের প্রথম টেস্ট ম্যাচ খেলবে ভারত। এরপর জোহানেসবার্গ এবং কেপ টাউনে যথাক্রমে ৩ এবং ১১ জানুয়ারি দ্বিতীয় ও তৃতীয় টেস্ট ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে। এই সফরে বিরাট কোহলির সেঞ্চুরির রেকর্ডের পুনরাবৃত্তি করার ভালো সুযোগ রয়েছে। রয়েছে নিজেকে ক্যাপ্টেন এবং ক্রিকেটার হিসাবে ছাপিয়ে যাওয়ার সুযোগ। এখন দেখার, এই সফরে বহুপ্রতীক্ষিত সেঞ্চুরি পান কিনা বিরাট। তাছাড়াও ক্যাপ্টেন হিসাবে বিরাট কি দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে প্রথমবার টেস্ট সিরিজ জিতিয়ে নিয়ে আসতে পারবেন, এই প্রশ্নটাও লাখ টাকার।

টাটকা খবর বাংলায় পড়তে লগইন করুন www.mysepik.com-এ। পড়ুন, আপডেটেড খবর। প্রতিমুহূর্তে খবরের আপডেট পেতে আমাদের ফেসবুক পেজটি লাইক করুন। https://www.facebook.com/mysepik

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *