Latest News

Popular Posts

ইংল্যান্ড সিরিজের আগে দলের উদ্দেশ্যে ইতিবাচক বার্তা বিরাট কোহলির

ইংল্যান্ড সিরিজের আগে দলের উদ্দেশ্যে ইতিবাচক বার্তা বিরাট কোহলির

Mysepik Webdesk: নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে আইসিসি টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে পরাজয় স্বীকার করেছে টিম ইন্ডিয়া। খেলার পর পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানের সময় দেখা যায় যে, মুষড়ে রয়েছে ভারতীয় ক্রিকেটারদের মুখ। তবে ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলি সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি পোষ্টের মাধ্যমে দলের হয়ে ইতিবাচক এক বার্তা দিয়েছেন। তিনি জানিয়েছেন যে, এটি কেবল একটি দল নয়, একটি পরিবারও। এর সঙ্গে অনেক আবেগ যুক্ত রয়েছে। আমাদের একসঙ্গে এগিয়ে যেতে হবে। এই পোস্টের মাধ্যমে মিডিয়া রিপোর্টগুলি প্রত্যাখ্যান করে বিরাট বলেছেন যে, আসন্ন ইংল্যান্ড সিরিজে দলে পরিবর্তন করা হতে পারে। উল্লেখ্য, ইংল্যান্ডের বিপক্ষে পাঁচ ম্যাচের টেস্ট সিরিজ ৪ আগস্ট থেকে শুরু হতে চলেছে।

আরও পড়ুন: টোকিও অলিম্পিকে ভারতীয় বক্সিং টিমের অন্যতম ভরসা লভলিনাকে চিনে নিন

ফাইনালে হারের পর রোহিত শর্মা ঋষভ পন্থ, শুভমন গিল, রবীচন্দ্রন অশ্বিন সহ গোটা দলকে হতাশ বলে মনে হয়েছিল। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে গুরুত্বপূর্ণ সিরিজের আগে ক্রিকেটারদের মনোবল ভেঙে যাওয়া দলের পক্ষে সঠিক নয়। এমন পরিস্থিতিতে ইংল্যান্ডের মতো কঠিন দলের বিপক্ষে সিরিজের জন্য দলকে প্রস্তুত করার ক্ষেত্রে বিরাট কোহলির ভূমিকা গুরুত্বপূর্ণ এবং তিনি তাঁর এই ভূমিকাটি খুব ভালোভাবেই পালন করছেন। পরবর্তী বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ এর ফাইনাল অনুষ্ঠিত হবে ২০২৩ সালে। এর আগে টিম ইন্ডিয়ার পক্ষের প্রতিটি সিরিজের ভালো পারফরম্যান্স করা গুরুত্বপূর্ণ। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজ দিয়ে ভারতকে নতুন করে শুরু করতে হবে। বিরাট তাঁর পোস্টের মাধ্যমে জানিয়েছেন যে, দল ফাইনালে হারের দুঃখ থেকে বেরিয়ে আসছে এবং তিনি সবসময়ই ক্রিকেটারদের পাশে রয়েছেন।

আরও পড়ুন: কলকাতায় অলিম্পিক দিবস পালন

এর আগে এমন খবর ছিল যে, দলের সিনিয়র ক্রিকেটারদের পারফরম্যান্সে নাকি বিরক্ত বিরাট কোহলি। তিনি ম্যাচের পর বলেছিলেন যে, কিছু খেলোয়াড় রান সংগ্রহের মনোভাব দেখাননি। যদিও বিরাট কোহলি কারোর নাম না করলেও ধারণা করা হচ্ছে যে, চেতেশ্বর পুজারার পারফরম্যান্স নিয়ে হতাশ ক্যাপ্টেন কোহলি। তিনি বলেন যে, “দলে সঠিক খেলোয়াড় নিয়ে আসা দরকার, যাঁরা ইতিবাচকভাবে খেলেন। আমরা এক বছরের জন্য অপেক্ষা করতে পারি না। আমাদের এটি নিয়ে আলোচনা করা প্রয়োজন। এই নিয়ে নতুন পরিকল্পনাও করা উচিত। আমাদের ওয়ানডে এবং টি-টোয়েন্টি দলগুলোর দিকে নজর দিলে আপনি বুঝতে পারবেন যে, আমাদের গভীরতা রয়েছে এবং খেলোয়াড়রা আত্মবিশ্বাসে ভরপুর। টেস্ট ক্রিকেটে এরকমটা প্রয়োজন।” ফাইনালে পরাজয়ের পর বিরাট কোহলি আরও জানিয়েছিলেন যে, নিউজিল্যান্ড বিশ্বকাপে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার যোগ্য। তবে তিনি চান যে, ভবিষ্যতে টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ বিজয়ী দল নির্বাচিত হোক বেস্ট অফ থ্রি ম্যাচের মধ্য দিয়ে। কি সেরা দল, তা মাত্র দু-দিনের চাপের ভিত্তিতে বিচার করা যায় না।

টাটকা খবর বাংলায় পড়তে লগইন করুন www.mysepik.com-এ। পড়ুন, আপডেটেড খবর। প্রতিমুহূর্তে খবরের আপডেট পেতে আমাদের ফেসবুক পেজটি লাইক করুন। https://www.facebook.com/mysepik

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *