চিনের প্রথম মহিলা নভোচারী হিসেবে মহাকাশে পৌঁছালেন ওয়াং ইয়াপিং

Mysepik Webdesk: চিনের প্রথম মহিলা নভোচারী হিসেবে মহাকাশ স্টেশনে তিয়ানগং-এ পা রাখলেন ওয়াং ইয়াপিং। আগামী ৬ মাস তিনি সেখানে থাকবেন। অন্যান্য মহাকাশচারীদের সঙ্গে তিনি বিভিন্ন বিষয়ে গবেষণা চালাবেন। জানা গিয়েছে, তাঁর সঙ্গে আরও দু’জন মহাকাশচারী তিয়ানগং-এ পৌঁছে গিয়েছেন। সোমবার এমনটাই জানিয়েছে চিনা মহাকাশ এজেন্সি।

আরও পড়ুন: মহাকাশেও আলোর উৎসব! টুইট করে ছবি প্রকাশ করল নাসা

China's Shenzhou-13 Spaceflight Mission to Launch on October 16, Wang Yaping  to Become China's First Female Astronaut to Carry Out Extravehicular  Activities - Pandaily

চিনের মহাকাশ এজেন্সি আরও জানায়, তিয়ানগং-এ পৌঁছানোর পর ওয়াং এবং তাঁর এক সহযোগী নভোচারী ঝাই ঝিগাং রবিবার সন্ধ্যায় মহাকাশ স্টেশনের প্রধান মডিউল ছেড়ে বাইরে আসেন। স্পেস স্টেশনে সরঞ্জাম স্থাপন করার পাশাপাশি তাঁরা স্টেশনের রোবটিক সার্ভিস আর্ম পরীক্ষা করার জন্য বাইরে ছয় ঘণ্টারও বেশি সময় ব্যয় করেন। অন্যদিকে, ইয়ে গুয়াংফু নামের আরেকজন নভোচারী মহাকাশ স্টেশনের ভিতর থেকে সহযোগিতা করেন। ৪১ বছর বয়সী নারী নভোচারী ওয়াং এবং ৫৫ বছর বয়সী ঝাই একসঙ্গে স্পেসওয়াক করেন।

আরও পড়ুন: বিগড়েছে শৌচাগার, মহাকাশচারীদের ডায়পার পরে ফিরতে হচ্ছে পৃথিবীতে

Wang Yaping, the first female astronaut in China to go from the fields to  the stars - World Stock Market

জানা গিয়েছে, ১৯৯৮ সালে প্রথম চিনের এই মডিউলটি তৈরি করা হয়। আগামী বছর তিয়ানগং মডিউলে আরও দু’টি সেকশন যুক্ত করা হবে। সেগুলি যথাক্রমে মেয়টিয়ান ও ওয়েন্টিয়ান। এর ফলে সম্পূর্ণ মহাকাশ স্টেশনটির ওজন হবে প্রায় ৬৬ টনের কাছাকাছি। যদিও এটি আন্তর্জাতিক স্পেস স্টেশনের চেয়ে অনেকটাই ছোট।

Facebook Twitter Email Whatsapp

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *