‘যৌন হেনস্থার জন্য মহিলাদের খোলামেলা পোশাকই দায়ী’, পাক-প্রধানমন্ত্রীর বিতর্কিত মন্তব্যে তোলপাড় নেটদুনিয়া

Mysepik Webdesk: এর আগেও পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান একাধিকবার বিতর্কমূলক মন্ত্যব্যের জেরে খবরের শিরোনামে উঠে এসেছিলেন। ফের আরও একটি বিতর্কমূলক মন্তব্য করে তিনি নেটিজেনদের কটাক্ষের শিকার হলেন। ‘Axios on HBO’-কে দেওয়া একটি সাক্ষাৎকারে মহিলাদের যৌন হেনস্থা সংক্রান্ত বিষয়ে প্রতিক্রিয়া জানাতে গিয়ে ইমরান খান মেয়েদের পোশাক সম্পর্কে একটি কুরুচিকর মন্তব্য করে বসেন। তিনি বলেন, “আজকাল মহিলারা যদি ছোটোখাটো পোশাক পরে ঘুরে বেড়ান, তাহলে তা পুরুষদের মনে প্রভাব ফেলবেই, যদি না সে রোবট হয়। এটা একেবারেই সাধারণ একটি বিষয়।”

আরও পড়ুন: কাশ্মীর নিয়ে ফের হুমকি পাকিস্তানের, পাল্টা জবাব ভারতেরও

তিনি আরও বলেন, “আমাদের সংস্কৃতিতে যেটা গ্রহণযোগ্য, সেটা যে অন্য সংস্কৃতিতেও গ্রহণযোগ্য হবে তার কোনও মানে নেই।” ইতিমধ্যেই পাক-প্রধানমন্ত্রীর এই মন্তব্যের জেরে সোশ্যাল মিডিয়ায় তুমুল হৈচৈ শুরু হয়ে যায়। রীতিমতো নেটিজেনদের ক্ষোভের মুখে পড়েন তিনি। অনেকেই তাঁর মন্তব্যকে জাতিবিদ্বেষমূলক মন্তব্য বলেও কটাক্ষ করেছেন। ইন্টারন্যাশানাল কমিশন অফ জুরিস্টস -র লিগাল অ্যাডভাইসর রিমা ওমর ইমরান খানের এহেন মন্তব্যকে নিরাশাজনক আখ্যা দিয়েছেন। তিনি সোশ্যাল মিডিয়ায় তিনি বলেছেন, “যৌন অত্যাচারের শিকারদের প্রতি অবিচার করেছেন ইমরান খান। তাঁর মন্তব্য খুবই হতাশজনক। তিনি ধর্ষিতাদেরই দায়ী করেছেন ধর্ষণের জন্য।” এরপরেই ব্যাঙ্গ করে তিনি লেখেন, “পুরুষরা রোবট নয়, এবার তাঁরা যদি মহিলাদের কম পোশাকে দেখেন, তাহলে তো তাঁরা আকর্ষিত হবেনই। কেউ কেউ তো আবার রেপও করবে।”

আরও পড়ুন: ফের আগ্রাসী চিন: লাদাখ সীমান্তের কাছে মোতায়েন লালফৌজের অদৃশ্য ‘H-20’ বোমারু বিমান

Facebook Twitter Email Whatsapp

এই সংক্রান্ত আরও খবর:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *